অটোবাইক ও মাহিন্দ্রা চলাচল বন্ধের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল

0
727

নিজস্ব প্রতিবেদক
নড়াইলের কালিয়া উপজেলা ও নড়াগাতি রুট থেকে গোপালগঞ্জ শহরে অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা (থ্রি হুইলার) চলাচল বন্ধের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২১ ডিসেম্বর) সকাল ১০টার দিকে নড়াগাতি থানার চাপাইল সেতু এলাকায় এসব কর্মসূচি পালিত হয়। এর আগে গত বুধবার সন্ধ্যায়ও একই স্থানে ওই দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়।
এলাকাবাসী এবং অটোবাইক ও মাহিন্দ্রা শ্রমিক সমিতির আয়োজনে এ মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন নড়াগাতি অটোবাইক শ্রমিক সমিতির সভাপতি এসএম আব্দুল হাই রানা, যোগানিয়া গ্রামের সাখাওয়াত হোসেন, জেলা পরিষদ সদস্য রায়হান ফারুকী ইমাম, নড়াগাতি থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি মফিজুল ইসলামসহ অটোবাইক, মাহিন্দ্রা চালক ও যাত্রী সাধারণ।
অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা শ্রমিক সমিতির নেতারা জানান, গত ১৮ ডিসেম্বর থেকে হঠাৎ করে নড়াইলের কালিয়া উপজেলা ও নড়াগাতি রুট থেকে গোপালগঞ্জ শহরে অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা (থ্রি হুইলার) চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। গোপালগঞ্জ শহরে যানজটের কথা বলে গোপালগঞ্জ পৌর কর্তৃপক্ষ ও পুলিশ প্রশাসন নড়াইল থেকে অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা (থ্রি হুইলার) চলাচল করতে দিচ্ছে না। এতে করে নড়াইল, বাগেরহাট, খুলনা ও গোপালগঞ্জের যাত্রী সাধারণ, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী ও অফিসগামীরা বিপাকে পড়েছেন।
অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা শ্রমিক সমিতির নেতা ও যাত্রী সাধারণরা আরো জানান, প্রায় পাঁচ মাস আগে নড়াইলের কালিয়া উপজেলা ও নড়াগাতি রুট থেকে গোপালগঞ্জ শহরে সরাসরি বাস চলাচল বন্ধ থাকায় এ রুটে বাহন হিসাবে অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা (থ্রি হুইলার) চলাচল চলে আসছে। কিন্তু গত ১৮ ডিসেম্বর থেকে হঠাৎ নড়াইলের কালিয়া উপজেলা ও নড়াগাতি রুট থেকে গোপালগঞ্জ শহরে সরাসরি অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা (থ্রি হুইলার) চলাচল বন্ধ করে দেয়ায় সীমাহীন ভোগান্তি হচ্ছে। এসব রুটে দ্রুত অটোবাইক এবং মাহিন্দ্রা (থ্রি হুইলার) চলাচলের দাবি করেন শ্রমিক, যাত্রী ও এলাকাবাসী। এ রুটে প্রায় ২৫০টি অটোবাইক ও ৫০টি মাহিন্দ্রা চলাচল করে। এতে প্রায় হাজারো মানুষের জীবন-জীবিকা নির্বাহ হচ্ছে। কিন্তু হঠাৎ করে এসব যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়ায় সমস্যা সৃষ্টি হচ্ছে।
প্রসঙ্গত, নড়াইলের চাপাইল এলাকায় মধুমতি নদীর ওপর নড়াইল, বাগেরহাট, খুলনা ও গোপালগঞ্জবাসীর চলাচলের সুবিধার্থে সেতু নির্মিত হয়েছে। ২০১৬ সালের ৩০ এপ্রিল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেতুটি উদ্বোধন করেন। সেতুর একপ্রান্তে নড়াইল জেলা এবং অপরপ্রান্তে গোপালগঞ্জ জেলার অবস্থান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here