এবার আর বসে থাকব না, মামলা করব: তিশা

0
933

জলসা ডেস্ক: ‘অনেক হয়েছে, এবার আর বসে থাকব না, মামলা করব। রেহান কিভাবে আমার ব্যক্তিগত মুঠোফোন নম্বরসহ স্ক্রিনশট দিয়ে ফেসবুকে ছড়ালো।

তার উদ্দেশ্য যে কতটা খারাপ তা বোঝা গেল। ‘হাবিব ওয়াহিদের সাবেক স্ত্রী রেহানের একটি ফেসবুক স্ট্যাটাস নিয়ে এভাবেই নিজের ক্ষোভ ঝাড়লেন তানজিন তিশা।
এর আগে আজ সন্ধ্যায় নিজের ফেসবুক ওয়ালে একটি স্ট্যাটাস দেন রেহান। সেখানে তিনি একটি স্ক্রিনশট আপলোড করেন। স্ক্রিনশটের কথোপকথনগুলো তানজিন তিশার, যা তিনি রেহানকে বলেছেন।

বাংলাদেশ প্রতিদিনকে তিশা বলেন, প্রতিনিয়ত রেহান হাবিবকে মেসেজ অথবা ফোন করে বিরক্ত করে। এমনকি আমাকেও মেসেজ দিয়ে বিরক্ত করে। সে এখন হাবিবের অতীত। তারপরও সে কোন উদ্দেশে এসব নিয়ে ঘাটাঘাটি করছে সেই প্রশ্নটি আপনাদের কাছেই রইলো।

তিনি আরো বলেন, সবচেয়ে ভয়ানক কাজটি হল, আমার ব্যক্তিগত মুঠোফোন নম্বরটি স্ক্রিনশটসহ প্রকাশ করলো। এটাও এক ধরনের ক্রাইম। ইতোমধ্যে আমি আমার শুভাকাঙ্ক্ষীদের সাথে কথা বলেছি। তারাও বিষয়টি নিয়ে খুব উদ্বিগ্ন। আর ছাড় দিব না। এবার হয়তো মামলা পর্যন্ত গড়াবে।

অন্যদিকে ডিভোর্সের পর থেকে তানজিন তিশার জন্যই ঘর ভেঙেছে বলে অভিযোগ করে আসছেন রেহান। ডিভোর্স হওয়ার পর থেকেই নাকি তানজিন তিশা ক্রমাগত মেসেজের পাশাপাশি নানা মাধ্যমে রেহানকে ভয় দেখানো ও বিরক্ত করে আসছিল। বিষয়টি তিনি গণমাধ্যমকর্মীদের কাছেও অভিযোগ করেছেন। এমনকি এ বিষয়ে একাধিক স্ট্যাটাসও দিয়েছে।

এদিকে স্ক্রিনশট সর্ম্পকে জানতে চাইলে রেহান বলেন, অনেকটা বাধ্য হয়েই আজ এটা প্রকাশ করলাম। সে শুধু আমাকে নয় আমার ভাইয়ের মোবাইলেও মাঝে একবার ফোন দিয়ে বিরক্ত করেছে। আর তিশা যদি মামলা করতে চায় তাও করুক।

উল্লেখ্য, ২০১১ সালে চট্টগ্রামের মেয়ে রেহানকে বিয়ে করেন হাবিব। হাবিব-রেহানার ঘরে আলিম ওয়াহিদ নামে এক ছেলে সন্তান রয়েছে। ছেলে আলিম ওয়াহিদ এখন তার মায়ের কাছেই রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here