করোনামুক্তদের নতুন সমস্যা, পর্যবেক্ষণে থাকা লাগতে পারে ৫ বছর

0
40

নিজস্ব প্রতিবেদক : করোনা থেকে মুক্ত হওয়ার পরও পিছু ছাড়ছে না জটিলতা। বরং অনেক ক্ষেত্রে দেখা দিচ্ছে নতুন নতুন সমস্যা। এ ধরনের রোগীদের সমস্যা চিহ্নিত করে প্রয়োজনীয় সেবা দিতে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চালু হলো কোভিড পরবর্তী ফলোআপ ক্লিনিক। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বলছেন, কোভিড মুক্তির পরও অনেককে ৫ বছর পর্যন্ত পর্যবেক্ষণে রাখতে হবে।

একমাস হলো কোভিড ১৯ থেকে সেরে উঠেছেন মাহবুব আলম। তবে গত কয়েকদিন ধরেই হঠাৎ করে ভুগছেন স্বাস্থ্যগত নানা জটিলতায়, যা দেখা দেয়নি আগে কখনো। এমন অনেককেই দেখা যাচ্ছে, করোনা থেকে মুক্ত হলেও নতুন করে শরীরে বাসা বেধেছে বিভিন্ন সমস্যা। ফিরতে পারছেন না স্বাভাবিক অবস্থায়।

করোনা থেকে সুস্থ হয়ে ফেরা কয়েকজন জন জানান, করোনা হওয়ার আগে এমন কোনো সমস্যা কখনই হয়নি, যা এখন হচ্ছে। মাথার পেছনে ঘাড় গরম হয়ে থাকা, শরীর গরম হয়ে যায়। এছাড়া ক্ষুধামন্দার কথাও জানান কেউ কেউ।

এ ধরনের সমস্যায় থাকা ব্যক্তিদের চিকিৎসার জন্য যুক্তরাজ্য, চীন, ইতালিসহ বিভিন্ন দেশেই চালু রয়েছে কোভিড পরবর্তী ফলোআপ ক্লিনিক। সে আদলে দেশেও এমন ক্লিনিক চালু করলো বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতাল। যা পরিচালনায় নেয়া হয়েছে যুক্তরাজ্যের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও ইমপেরিয়াল কলেজের কারিগরি সহায়তা।

অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া বলেন, যারা হাসপাতাল ছেড়ে চলে যায় তাদের কোভিড পরবর্তী নানা সমস্যা দেখা দেয়। ৫ বছর পর্যন্ত এসব রোগীদের ফলোআপ করতে হয়। সে জন্যই খোলা হলো ক্লিনিক।

বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বলছেন, করোনা থেকে সেরে ওঠা ব্যক্তিদের অনেককে ফলোআপে রাখতে হবে ৫ বছর পর্যন্ত। আর ফলোআপ ক্লিনিক পরিচালনায় প্রাথমিকভাবে প্রয়োজনীয় লোকবলকেই বড় চ্যালেঞ্জ মনে করছে কর্তৃপক্ষ।

বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে কোভিড পরবর্তী ফলোআপ ক্লিনিকে সেবা মিলবে প্রতি শনি ও মঙ্গলবার, সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত।