খাদ্য কর্মকর্তা বদরুলের যশোরে রহস্যজনক মৃত্যু-মনিরামপুর কল্যাণ সমিতির শোক

0
110

বিশেষ প্রতিনিধি : যশোরে বদরুল আলম (৪২) নামে একজন খাদ্য কর্মকর্তা রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। নিহতের বাবা নিছার আলী গাজী অভিযোগ করেছেন, তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে তিনি যশোর উপশহরস্থ বাড়িতে মারা যান। বদরুল আলম খুলনার মানিকতলায় ফুড ইন্সপেক্টর হিসেবে কর্মরত ছিলেন।
যশোর কোতোয়ালি থানার এসআই ফকির ফেরদৌস নিহতের পরিবারের উদ্ধৃতি দিয়ে জানান, বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটায় ফেরদৌস রহস্যজনকভাবে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হন। এসময় তাকে হাসপাতালে ভর্তি না করে বাসায় রেখে চিকিৎসা দেয়া হয়। এক পর্যায়ে বাড়িতেই তার মৃত্যু হয়।
নিহতের বাবা নিজার আলী অভিযোগ করেন, তার পুত্রবধূ পিংকিসহ তার লোকজন ছেলেকে চেতনানাশক ইনজেকশন দেয়ার কারণে বদরুল মারা গেছে। নিহতের ভগ্নিপতি জুলফিকার আলী জানান, তার শ্যালক খাদ্য কর্মকর্তা অঢেল টাকা ও সম্পত্তির মালিক। তার যদি ডায়রিয়া হয় তাহলে তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়নি কেন। তাছাড়া মৃত্যুর পর তাকে তড়িঘড়ি করে কবর দেয়া হচ্ছিল। তার মৃত্যুর প্রকৃত কারণ ডাক্তাররাই বলতে পারবেন। তবে, এ মৃত্যু খুবই রহস্যজনক বলে তিনি ধারণা করেন। যশোর কোতোয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান বলেন, বদরুল আলমের মৃত্যুর কারণ হিসেবে তার বাবার দাবি, ডায়রিয়ায় ছেলের মৃত্যু হয়নি। এটিকে তিনি হত্যাকাণ্ড মনে করছেন। সে কারণে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসার পরেই মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে। নিহত বদরুল যশোরের মণিরামপুর উপজেলার ভরতপুর গ্রামের বাসিন্দা। তবে তিনি যশোর উপশহরের ডি-ব্লকের নিজের বাড়িতে বসবাস করতেন।
মরহুমের মৃত্যুত্যে শোক জানিয়ে বিবৃতি জানিয়েছেন মনিরামপুর কল্যাণ সমিতির সাধারন সম্পাদক আব্দুল গনিসহ সংগঠনের সকলে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here