চোখ বাঁচাতে সিদ্দিকুরের চেন্নাই যাত্রা আজ

0
380

নিজস্ব প্রতিবেদক: শাহবাগে আন্দোলন করতে গিয়ে ‘পুলিশের ছোড়া কাঁদানে গ্যাসের শেলের আঘাতে’ চোখে জখম পাওয়া সরকারি তিতুমীর কলেজের ছাত্র সিদ্দিকুর রহমানকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ভারতের চেন্নাইয়ে নেয়া হচ্ছে আজ। বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে তাকে চেন্নাই নেয়া হবে।

চোখে জখম হওয়ার পর তাকে চেন্নাই নেয়ার কথা থাকলেও পাসপোর্ট না থাকায় চেন্নাই যাত্রা বিলম্ব হয়। তবে গত মঙ্গলবার তার পাসপোর্টের কাজ সম্পন্ন হয়। এছাড়া ভিসার জন্য কাগজপত্রও প্রস্তুত করা হয়।

সিদ্দিকুর রহমানের সঙ্গে চেন্নাই যাচ্ছেন তার বড় ভাই নায়েব আলী ও তার চিকিৎসক জাতীয় চক্ষু বিজ্ঞান ইনিস্টিটিউট হাসপাতালের সহযোগী অধ্যাপক ইফতেখার মনির।

সিদ্দিকুর রহমানের এক স্বজন ঢাকাটাইমসকে এসব তথ্য জানিয়েছেন।

গত ২০ জুলাই বৃহস্পতিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভূক্ত সাতটি সরকারি কলেজের শিক্ষার্থীরা পরীক্ষার তারিখ ঘোষণাসহ বিভিন্ন দাবিতে শাহবাগ এলাকায় অবস্থান নেন। এক পর্যায়ে শিক্ষার্থীরা মিছিল নিয়ে সামনে এগোতে চাইলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। এক পর্যায়ে ছাত্রদের লাঠিপেটার পাশাপাশি পুলিশ কাঁদানে গ্যাস ছোড়ে। কাছ থেকে ছোড়া কাঁদানে গ্যাসের শেল গিয়ে আঘাত হানে সরকারি তিতুমীর কলেজের ছাত্র সিদ্দিকুরের দুই চোখে। প্রথমে সিদ্দিকুরকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। এরপর তাকে নেয়া হয় চক্ষু বিজ্ঞান ইনস্টিটিউটে। সেখানে গত শনিবার তার চোখে অস্ত্রোপচার করা হয়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে সিদ্দিকুর রহমানের চিকিৎসার খরচ বহনের সার্বিক দায়িত্ব নেয় সরকার। এছাড়া তার চোখ ভালো করতে সবচেয়ে ভালো চিকিৎসাসেবা দিতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। চক্ষু বিজ্ঞান ইনস্টিটিউটে দেখতে গিয়ে সিদ্দিকুরের চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

ওইদিনের ঘটনা তদন্তে ২৩ জুলাই বিকালে ঢাকা মহানগর পুলিশের যুগ্ম কমিশনার (অপারেশন) মীর রেজাউল আলমকে প্রধান করে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে ডিএমপি। এই কমিটিকে তিন দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দিতে বলা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here