চৌগাছার মেয়র হিমেল ও হাসিবরাই শেষ ভরসা

0
2508

জিয়াউর রহমান রিন্টু

সকলেই যখন করোনা ভয়ে ভীত তখনই তারা বীরদর্পে সকলের সামনে এসে দাঁড়িয়েছেন।
তাদের মধ্যে একজন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব,একজন ব্যবসায়ী এবং বাকিরা একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ও সদস্য।
করোনা উপসর্গ নিয়ে কেউ মারা গেলে তার লাশ দাফন কাফনের মানুষের বর্তমান সময়ে খুবই অভাব।
শুধু রোগটির উপসর্গ দেখেই সন্তান বাবা-মাকে ফেলে যাচ্ছে, নিহত ভাইয়ের লাশ ছুতে আসছেনা কেউ এমন অনেক হৃদয়বিদারক দৃশ্য আমাদের চারপাশে অহরহ ঘটে চলেছে।
সেই ঘটনার কোনটির ব্যতয় ঘটেনি যশোরের চৌগাছা উপজেলাতেও। কিন্তু এই চরম সময়েও যারা সেই মৃতদের পাশে আছেন তাদেরকে বীর বলাই যথার্থ।
যশোরের চৌগাছা উপজেলার তেমনই কিছু বীর হলেন পৌর মেয়র নূর উদ্দিন আল মামুন হিমেল, অগ্রযাত্রা স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সভাপতি ও একজন সৎ ব্যবসায়ী হাসিবুর রহমান, সংগঠনটি সাধারণ সম্পাদক জাহিদ হাসান এবং সদস্য ফয়সাল ও রাজু আহমেদ।
রবিবার তেমনি একজন অসুস্থ মানসিক ভারসাম্যহীন নারীর জানাযা ও কবর দেওয়ার কেউ ছিলনা। যথারীতি চৌগাছার মেয়র হিমেল ও হাসিব ইলেকট্রনিক্স এর মালিক হাসিব হাজির হলেন সেই দাফন কাফনের কাজে। উল্লেখ্য বেশ কিছুদিন যাবৎ এই মহিলা চৌগাছা যশোর বাসস্ট্যান্ডে অসুস্থ হয়ে গায়ে দুর্গন্ধ নিয়ে পড়ে ছিলেন। আজ মৃত্যুতে তার সকল জ্বালা-যন্ত্রণা শেষ হলো। এনিয়ে চৌগাছাতে করোনা ক্রান্তিকালে তিনজনকে কবরস্থ করছেন মেয়র হিমেল ও হাসিবের নেতৃত্বে অগ্রযাত্রা নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। এর আগে একজন ড্রাইভার বিষাক্ত মদপানে নিহত হলে তার ভাইয়েরাও করোনা সন্দেহে তার কাছে যাননি সেসময়ও এই মেয়র হিমেল হাসিব তাকে কবরস্থ করেন তার কিছুদিন পর চৌগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদী মাসুদ চৌধুরীর চাচা করোনাই আক্রান্ত হয়ে ইন্তেকাল করেন। সেই লাশ তার নিজ গ্রামে নিয়ে আসার পর সেখানেও উপস্থিত হন মেয়র হিমেল এবং হাসিব। তাদের নেতৃত্বেই করণা আক্রান্ত সেই ব্যক্তিকে দাফন করা হয়।
করোনার বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার যুদ্ধ ঘোষণার সাথে সাথে মানুষর সচেতনতা বৃদ্ধি করতে, চৌগাছা পৌর সদরের অলিতে-গলিতে জীবানুনাশক ছিটাতে, এমনকি সরকারি ত্রাণ কার্যক্রমে সার্বিকভাবে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের নেতৃত্বের ভূমিকায় ছিলেন হাসিব। সাথে ছিল তার সংগঠন অগ্রযাত্রা।
প্রতিটি ব্যক্তির লাশের দাফন এবং লাশ বহন করে নিয়ে কবরে নামানো পর্যন্ত সব কাজই মেয়র হিমেল অগ্রযাত্রার সভাপতি হাসিব সাধারণ সম্পাদক জাহিদ হাসান সদস্য রাজু আহমেদ ও ফয়সাল।
কথা বলতে চাইলে মুচকি হেসে চলে যান স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন অগ্রযাত্রার সভাপতি হাসিবুর রহমান। কয়েকবার হজ করে আসা এই মিষ্টভাষী ব্যবসায়ি চৌগাছার সকলের প্রিয়।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে চৌগাছার মেয়র নুর উদ্দিন আল মামুন হিমেল বলেন, “ভাই এসব কাজে আমার কোন বক্তব্য নেই। মানুষের সেবা করার জন্য রাজনীতি করি। জননেত্রী শেখ হাসিনা করোনা বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন,আমি সেই যুদ্ধের একজন যোদ্ধা। এছাড়া যদি মানুষ হিসেবে বলেন তবে এটা আমার মানবিক দায়িত্ব।