চৌগাছায় সাবেক শিবির নেতার নেতৃত্বে প্রেসক্লাবের শ্রদ্ধাঞ্জলি ছিড়ে সম্পাদককে হেনস্থা

0
558

চৌগাছা (যশোর) প্রতিনিধি

যশোরের চৌগাছায় ৫০তম মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের শ্রদ্ধাঞ্জলি প্রদানের সময় চৌগাছা সরকারি কলেজ ছাত্র সংসদে ইসলামী ছাত্র শিবিরের প্যানেল থেকে সদস্য পদে নির্বাচনকারী সাবেক শিবির নেতা আলমগীর মতিনের নেতৃত্বে চৌগাছা প্রেসক্লাবের ফুলের ডালি ছিড়ে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ও স্থানীয় দৈনিক সমাজের কথা পত্রিকার চৌগাছা প্রতিনিধি প্রভাষক অমেদুল ইসলামকে হেনস্থা করে সন্ত্রাসীরা। এ বিষয়ে প্রেসক্লাবের সম্পাদক প্রভাষক অমেদুল ইসলাম চৌগাছা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। এর আগে একই সন্ত্রাসীরা চৌগাছা ৫০ শয্যা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকদের সাথে এবং সোনালী ব্যাংকের চৌগাছা শাখার কর্মকর্তাদের সাথেও অসৌজন্যমূলক মারমুখি আচরণ করেন।
শুক্রবার সকালে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের শ্রদ্ধাঞ্জলি প্রদানের সময় শহরের মুক্তিযুদ্ধ ভাস্কর্যে এই ঘটনা ঘটে।
চৌগাছা হাসপাতালের উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার ডা. কামাল হোসেন ও ডা. বিজয় কুমার অধিকারী ও উপজেলা কমিউনিটি হেলথ কেয়ার প্রোভাইডার (সিএইচসিপি) অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি নান্নু মিয়া জানান সকাল সাড়ে আটটার দিকে চৌগাছা উপজেলা ৫০ শয্যা হাসপাতালের আরএমও ডা. আরিফের নেতৃত্বে চৌগাছা হাসপাতালের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধাঞ্জলি দেয়ার জন্য শহরের মুক্তিযুদ্ধ ভাস্কর্য মোড়ে অন্যান্য সংগঠনের সাথে অবস্থান করতে থাকেন। এসময় প্রচার মাইক হাতে স্থানীয় একটি পত্রিকার সাংবাদিক শাহানুর আলম একের পর এক সংগঠনের নাম ঘোষণা করলেও হাসপাতালের নাম ঘোষণা করছিলেন না। এসময় কমিউনিটি ক্লিনিক হেলথ কেয়ার প্রোভাইডার সমিতি চৌগাছা উপজেলা সভাপতি নান্নু মিয়া ঘোষককে এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ঘোষক শাহানুর আলম উজ্জল মাইকে চৌগাছা উপজেলা ৫০ শয্যা হাসপতালের ফুলের ডালি ছোট বলে কটাক্ষ করেন এবং হাসপাতালের ডাক্তার-কর্মকর্তা-কর্মচারীদের দুর্নীতিবাজসহ নানা আপত্তিকর বক্তব্য দেন। তার আপত্তিকর বক্তব্যের প্রতিবাদ করলে শাহানুর আলমের নেতৃত্বে চৌগাছা সাব-রেজিষ্ট্রি অফিসের মৌরি বাবলুর রহমান ও জামিল হোসেন নামে এক যুবক আরএমও ডা. আরিফকে লাঞ্চিত করেন। এসময় প্রতিবাদ করলে উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার ডা. কামাল হোসেন, উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার ডা. বিজয় কুমার অধিকারী, হাসপাতালের কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান, কমিউনিটি হেলথ কেয়ার প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন চৌগাছার সভাপতি নান্নু মিয়া ও সম্পাদক মুক্তার হোসেনের উপর মারমুখি হয়ে ওঠেন তারা। এরও আগে তারা সোনালী ব্যাংক চৌগাছা শাখার কর্মকর্তাদের সাথেও অসৌজন্যমূলক আচরণ করেন বলে জানিয়েছেন ব্যাংকটির কর্মকর্তারা।
এসব বিষয় নিয়ে উপজেলার জনসাধারণের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। তারা বলছেন সরকারি অনুষ্ঠানে প্রশাসনের পক্ষ থেকে উপস্থাপকরা অনুষ্ঠান উপস্থাপন করবেন। সেখানে কেন যে কেউ মাইক নিয়ে এভাবে ব্যক্তিগতভাবে আক্রমণ করবেন? তাদের কথা,সরকারি সেবামূলক প্রতিষ্ঠান হাসপাতাল নিয়েই বা কেন এভাবে মাইকে বিষদগার করা হবে। কেউ যদি কারো দূর্নীতির প্রমাণ পেয়ে থাকেন তিনি সাংবাদিক হলে তার লেখনির মাধ্যমে প্রকাশ করতে পারেন। সরকারি প্রতিষ্ঠান নিয়ে এভাবে স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের অনুষ্ঠানে মাইকে প্রচার করতে পারেন না।
এ বিষয়ে চৌগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোছাঃ লুৎফুন্নাহার লাকি বলেন, বিষয়টি অনভিপ্রেত। এভাবে মাইকে একটি প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে মিথ্যা ও ভিত্তিহীন আপত্তিকর বক্তব্য প্রচার কোনভাবেই কাম্য নয়। আমার সহকর্মীদের সাথে অসৌজন্যমূলক ব্যবহার এবং প্রচার মাইকে আপত্তিকর বক্তব্য দেয়ার বিষয়ে মাননীয় সংসদ সদস্য মহোদয়, সিভিল সার্জন, উপজেলা চেয়ারম্যান, উপজেলা নির্বাহী অফিসারসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে জানিয়েছি। সংসদ সদস্য মহোদয় ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ দেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। আগামীকাল (শনিবার) এ বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের কাছে লিখিত অভিযোগ দেয়া হবে বলেও তিনি জানান।
এ বিষয়ে চৌগাছা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক দৈনিক সমাজের কথার চৌগাছা প্রতিনিধি প্রভাষক অমেদুল ইসলাম বলেন মাইকে চৌগাছা প্রেসক্লাবের নাম ঘোষণা হওয়ার পর আমি প্রেসক্লাবের ফুলের ডালি নিয়ে পুস্পস্তবক অর্পণ করতে এগিয়ে বেদিতে উঠতে গেলে চৌগাছা ডিগ্রি কলেজ ছাত্র সংসদে শিবিরের প্যানেল থেকে নির্বাচনকারী সাবেক শিবির নেতা আলমগীর মতিন আমার হাত থেকে ফুলের ডালি কেড়ে নেয়ার চেষ্টা করেন। কেড়ে নিতে না পেরে সে ফুলের ডালি ছিড়ে ফেলে ও আমাকে ধরে টানাহ্যাচড়া করে। এসময় প্রচার মাইক হাতে নিয়ে শাহানুর আলম চৌগাছা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহবায়ক জিয়াউর রহমান রিন্টুর নাম ধরে আপত্তিকর বক্তব্য দিতে থাকেন।’ তিনি বলেন আমি এ বিষয়ে স্থানীয় সংসদ সদস্য মহোদয়কে জানিয়েছি। তার পরামর্শে চৌগাছা থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।
চৌগাছা থানার ডিউটি অফিসার এসআই (উপ-পরিদর্শক) বাচ্চু লিখিত অভিযোগ পাওয়ার বিষয় নিশ্চিত করেছেন।