জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক, ছাত্র সহ অর্ধশতাধিক সাধারণ মানুষের নামে মামলা : পুলিশ মোতায়েন

0
221

পাইকগাছায় পোদা নদীর নেটপাটা উচ্ছেদ করে পানি নিস্কাশনে

বাবুল আক্তার, পাইকগাছা: পাইকগাছায় বদ্ধ পোদা নদীর নেটপাটা উচ্ছেদ করে পানি নিস্কাশনের ঘটনায় চেয়ারম্যানের ভাইপো ইউপি সদস্য, শিক্ষক, ছাত্র সহ সাধারণ এলাকাবাসীর নামে চাঁদাবাজী, চুরি, লুটপাটের অভিযোগ এনে থানায় মামলা করেছে। এ ব্যাপারে এলাকায় টান টান উত্তেজনা বিরাজ করছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।
জানা যায়, উপজেলার লতা ইউনিয়নের মধ্য দিয়ে প্রবাহিত বদ্ধ পোদা নদী। এই নদী উপজেলার ফতেপুর আদর্শ মৎস্যজীবী সমবায় সমিতি ইজারা গ্রহণ করেন। সমিতি লতা ইউপি চেয়ারম্যান দিবাকর বিশ্বাসকে দেখাশুনার দায়িত্ব দিলে তিনি সরকারী নীতিমালা উপেক্ষা করে ৫টি খন্ডে তার ভাইপো যুবলীগনেতা বাবুলাল সহ বিভিন্ন লোককে সাব-লীজ প্রদান করেন বলে এলাকাবাসী জানিয়েছে। তারা জলমহলে নেটপাটা দেয়ার ফলে ইতিপূর্বে অবিরাম বর্ষণে ইউনিয়নের অধিকাংশ গ্রাম তলিয়ে যায়। তাই এলাকাবাসী ঐক্যবদ্ধ হয়ে শুক্রবার ঐ নদীর নেটপাটা উচ্ছেদ করে পানি নিস্কাশন করে। এ ব্যাপারে চেয়ারম্যান দিবাকর বিশ্বাসের ভাইপো যুবলীগনেতা বাবুলাল বাদী হয়ে ৫ ইউপি সদস্য দেবাশীষ রায়, প্রদীপ মহলদার, অসীম ঢালী, মঙ্গল সরকার, চিত্তরঞ্জন মন্ডল, শিক্ষক পবিত্র মন্ডল, নিউটন মিস্ত্রী, কিশোর রঞ্জন, ছাত্র পল্লব, দিলিপ সহ ৪ গ্রামের অর্ধশত সাধারণ মানুষের নামে মামলা করেছে। যার নং- ৪১, তারিখ- ২৯/০৭/২০১৭। ধারা- ১৪৩/ ৪৪৭/ ৩২৩/ ৩০৭/ ৩৭৯/ ৩৮০/ ৩৮৫/ ৫০৬/ ১১৪ দন্ড বিধি। মামলা হওয়ায় লতা ইউনিয়নের ৪টি গ্রামে পুরুষশূন্য হয়ে পড়েছে। চেয়ারম্যান দিবাকর বিশ্বাস জানান, পোদা নদী পাইকগাছা-কয়রার সংসদ সদস্য এ্যাডঃ শেখ মোঃ নুরুল হকের পুত্র আমিরুল ইসলাম ইজারা নিয়ে তিনি নিজে ও বিভিন্ন খন্ডে কয়েকজনকে সাব-লীজ প্রদান করেছে। সেখানে আমার কোন সম্পৃক্ততা নেই। আমি সব সময় জনগণের পক্ষে। পাইকগাছা থানার ওসি (তদন্ত) এস,এম, জাবীদ হাসান জানান, যেহেতু একটি বদ্ধ জলমহলের পানি নিস্কাশন ঘটনায় মামলা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে কোন নিরীহ মানুষ হয়রানীর স্বীকার হবে না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here