দেশে ঢুকছে প্রচুর অবৈধ অস্ত্র-মন্ত্রিসভা কমিটির সভায় উদ্বেগ

0
110

নিজস্ব প্রতিবেদক : গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে সরকার জানতে পেরেছে, বর্তমানে দেশে প্রচুর অবৈধ অস্ত্র ঢুকছে। বিষয়টি উদ্বেগজনক বিবেচনায় নিয়ে সেগুলো উদ্ধারে অভিযান চালানোর নির্দেশ দিয়েছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাবিষয়ক মন্ত্রিসভা কমিটি। গতকাল সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাবিষয়ক মন্ত্রিসভা কমিটির সভা শেষে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানানো হয়। সভায় কমিটির সভাপতি ও মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হকসহ বেশ কয়েকজন মন্ত্রী, সচিব এবং বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর শীর্ষ পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। পরে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, গোয়েন্দা সংস্থা থেকে রিপোর্ট এসেছে, বর্তমানে প্রচুর অবৈধ অস্ত্র দেশে ঢুকছে। অনেকেই জাল লাইসেন্স বানিয়েছেন। সে জন্য লাইসেন্স যাচাই-বাছাই এবং অবৈধ অস্ত্র চিহ্নিত করে যেগুলো উদ্ধারে অভিযান চালানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে সুনির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে এ অভিযান চালাতে বলা হয়। চোরাকারবারি বা যাদের বিষয়ে তথ্য থাকবে, তাদের ঘিরেই অভিযান চালানো হবে। সাধারণ মানুষ যেন ভীতসন্ত্রস্ত বা ক্ষতিগ্রস্ত না হয়, সে বিষয়ে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। পবিত্র রমজান মাসে দ্রব্যমূল্য নিয়েও সভায় আলোচনা হয়েছে বলে জানান আ ক ম মোজাম্মেল হক। তিনি বলেন, ওই সময় ভেজাল ঠেকাতে যেন সব সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত থাকে এবং নিত্যপণ্যের জোগান যেন ঠিক থাকে, সে বিষয়ে নজর রাখতে সংশ্লিষ্টদের বলা হয়েছে। মাদক নিয়ন্ত্রণের বিষয়টি সভায় বিশেষভাবে গুরুত্ব পেয়েছে। এ বিষয়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাবিষয়ক মন্ত্রিসভা কমিটির সভাপতি বলেন, মাদক জাতির জন্য উদ্বেগের ব্যাপার। মাদক নিয়ন্ত্রণে কলাকৌশল বাড়ানোর জন্য বলা হয়েছে। মাদক বিক্রেতা ও সেবীদের তালিকা করা হবে। বিভিন্ন সংস্থা থেকে তালিকা করা হবে। পরে সেগুলো জননিরাপত্তা বিভাগের সচিবের নেতৃত্বে পর্যালোচনা শেষে একটি পূর্ণাঙ্গ তালিকা করব। সে অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে তা প্রকাশ করা হবে না। আইনশৃঙ্খলা রক্ষার সময় বাহিনীর ভাবমূর্তি নষ্ট হয়, এমন কিছু যাতে না ঘটে বিষয়ে সচেতন হতে বলা হয় সভা থেকে। উদ্যোগ নেওয়ার পরও সাইবার অপরাধের বিষয়ে প্রতিকারের লক্ষ্যে দেশে ইউটিউব, ফেসবুকের মতো প্রতিষ্ঠানের অফিস করতে না পারাকে ব্যর্থতা বলে উল্লেখ করেন মন্ত্রী। এ জন্য এ উদ্যোগ দ্রুত বাস্তবায়নের জন্য তাগিদ দেওয়া হয়েছে। মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী বলেন, ১০ ডিসেম্বর অনেক দিবাস্বপ্ন দেখেছেন। মানুষ আতঙ্কিত ছিল যে কী করে, কী ঘটে। তবে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী অত্যন্ত দক্ষতার সঙ্গে মোকাবিলা করেছে। বর্তমানে বরাবরের মতোই আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক আছে। সে জন্য সভা থেকে সন্তোষ প্রকাশ করা হয়েছে।