পাইকগাছায় লক্ষ্মীখোলা হাটের মামলায় সরকারপক্ষে রায় : এলাকাবাসী জমি পুনরুদ্ধারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা

0
168

পাইকগাছা প্রতিনিধি : পাইকগাছার লক্ষ্মীখোলায় বিরোধপূর্ণ হাটের সম্পত্তি মামলায় আদালত আবারো সরকারের অনুকুলে রায় দিয়েছেন। জেলা দায়রা জজ আদালত ১৫ অক্টোবর সরকারের পক্ষে রায় প্রদান করলে এলাকার জনগোষ্ঠির মধ্যে ব্যাপক প্রাণ চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে এবং জবর-দখল থেকে হাটের সম্পত্তি উদ্ধারের জন্য এলাকার মানুষ দ্রুত প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। জবর দখলকারী মহিউদ্দীন টুটুল কাগজীর দায়ের করা ২১০/১৬ আপীল মামলায় আদালত এ রায় দেন।
জানা গেছে, ব্রিটিশ আমলে উপজেলার লস্কর-চাঁদখালী ইউপির সংযোগস্থল মিনহাজ নদীর তীরে লক্ষ্মীখোলায় এলাকার জনগোষ্ঠির চাহিদার ভিত্তিতে সরকারীভাবে ৭৭ শতক জমিতে এ হাট গড়ে ওঠে। এলাকার মানুষের তদারকি ও সুনজর থাকায় দ্রুত সময় এখানে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে ওঠে এবং তা ব্যাপক জনপ্রিয়তা পায়। কালচক্রের এক সময় নদী পথ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় এ হাটটি বন্ধ হয়ে যায়। স্থানীয়দের অভিযোগ, সরকারের নজরদারীর অভাবে হাটের পার্শ্ববর্তী বাসিন্দা মহিউদ্দীন টুটুল কাগজী গংরা পর্যায়ক্রমে হাটের সম্পত্তি দখল করে নেয়। এ নিয়ে বিভিন্ন সময়ে হাটের সম্পত্তি পুনরুদ্ধারে স্থানীয়রা সভা-সমাবেশ করে এবং একে অপরের পাল্টাপাল্টি মামলাও জড়িয়ে যায়। জানা গেছে, সরকারপক্ষ একাধিকবার এলাকার জনগণকে নিয়ে হাটের সম্পত্তি নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নেয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু হামলা-মামলার আশংকায় পড়ে সে পথ রুদ্ধ হয়ে যায়। হাটের সম্পত্তি পুনরুদ্ধারের জন্য সরকারপক্ষ পাইকগাছা সহকারী জজ আদালতে ২৩৫/০৮ নং মামলা করলে টুটুল কাগজীদের বিরুদ্ধে রায় হয়। এরপর বিবাদীপক্ষ এ রায়ের বিরুদ্ধে খুলনা জেলা দায়রা জজ আদালতে ২১০/১৬ আপীল মামলা করে। দীর্ঘ শুনানী অন্তে বিজ্ঞ আদালত সরকার পক্ষের অনুকুলে রায় প্রদান করেছেন। এ নিয়ে এলাকায় বিভিন্ন গ্রামের মানুষের মধ্যে স্বস্তি ফিরেছে এবং দ্রুত হাটের সম্পত্তি পুনরুদ্ধারের জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের প্রতি জোর দাবী করেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here