ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশের প্রশংসায় বিশ্বনেতারা

0
65

মুজিবশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে সরাসরি যোগ দিতে না পারলেও, করোনাকালে ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন বিশ্বনেতারা।

শুক্রবার (২৬ মার্চ) জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডে আয়োজিত ১০ দিনের অনুষ্ঠানের সমাপনী দিনে প্রভাবশালী তিন দেশের রাষ্ট্রপতি ও পাকিস্তানসহ দুটি দেশের সরকার প্রধান অনলাইন বার্তায় শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বাংলাদেশিদের। প্রত্যেক নেতার কণ্ঠে ছিল, আগামীর উজ্জ্বল বাংলাদেশের সঙ্গে টেকসই উন্নয়নে কাজ করা।

এদিন, বিকেলে জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডে মুক্তির মহানায়ক জাতির পিতার জন্মশতবর্ষ এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছরে আয়োজিত ১০ দিনের আয়োজনের সমাপনী অনুষ্ঠান হয়। অনুষ্ঠানে নরেন্দ্র মোদিসহ পাঁচ দেশের সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধান সরাসরি অংশ নিলেও, মহামারির বাধায় আসতে না পারলেও, ভিডিও বার্তায় শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বিশ্বের প্রভাবশালী নেতারা।

জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস বলেন, ৫০ বছরে অনেক এগিয়েছে বাংলাদেশ।

শুভেচ্ছা জানানোর এই ধারায় বাদ যায়নি পাকিস্তানও। দেশটির প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, ভবিষ্যতের জন্য দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের মানোন্নয়ন করতে চান তিনি। ইমরান খানের পক্ষে পাকিস্তান হাইকমিশনের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স তাঁর বার্তা পড়ে শোনান।

বন্ধুপ্রতীম রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের বার্তা পড়ে শোনান দেশটির রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার আই ইগনিটভ। পুতিন বলেছেন, সামনে আরও অনেক কাজ করার আছে।

এ সময় তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েব এরদোগান তার বার্তায় বলেন, কোভিডের কারণে আসতে না পারলেও, তিনি বাংলাদেশের উন্নয়ন নিজের চোখে দেখতে আসবেন শিগগিরই। নতুন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনও জানিয়েছেন শুভেচ্ছা বার্তা। তাঁর বার্তা মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল মিলার পাঠ করে বলেন, বাংলাদেশ একটু নতুন আশা জাগানিয়া দেশ।

অর্থনৈতিক উন্নয়ন, সামাজিক সুরক্ষা ও টেকসই উন্নয়নে প্রত্যেক নেতাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের সাথে সমন্বয় করে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।