মমতাকে সঙ্গে নিয়েই তিস্তা চুক্তি হবে : সুষমা স্বরাজ

0
239
দিল্লিতে সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ

ম্যাগপাই নিউজ ডেস্ক: ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে সঙ্গে নিয়েই তিস্তা চুক্তি হবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ।

মোদি সরকারের তিন বছর পূর্তি উপলক্ষে সোমবার দিল্লিতে সংবাদ সম্মেলনে এ সম্পর্কিত এক প্রশ্নের উত্তরে সুষমা জানান ‘তিস্তার সমস্যার সমাধানে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীকে সঙ্গে নেওয়াটা খুবই প্রয়োজন’।
বাংলাদেশের সঙ্গে তিস্তার পানি বন্টন সমস্যা মেটানোর জন্য কেন্দ্র সবরকম প্রচেষ্টা চালাচ্ছে বলেও জানান সুষমা। যদিও এই সমস্যা সমাধানের কোন টাইম লাইন বেঁধে দেননি তিনি।
ভারত এবং বাংলাদেশ খুব ভাল প্রতিবেশি। বিদ্যুৎ, বিনিয়োগ, নিরাপত্তা সহ অন্যান্য ক্ষেত্রে দুই দেশই এগিয়ে গেলেও তিস্তার পানি ইস্যুটি এখনও বিরক্তিকর সমস্যা হয়েই রয়ে গেছে। ২০১১ সালে ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ড. মনমোহন সিং এর ঢাকা সফরকালে দুই দেশের মধ্যে তিস্তার পানি বন্টন নিয়ে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়ার কথা থাকলেও মমতা ব্যানার্জির আপত্তিতে তা বাতিল হয়ে যায়।

চলতি বছরের এপ্রিল মাসে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দিল্লি সফর কালেও এই চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। কিন্তু হাসিনার সঙ্গে একান্ত বৈঠক করে বিকল্প প্রস্তাব দেন। বিষয়টি নিয়ে দুই দেশের সরকারকেই ভেবে দেখার আহ্বান জানান। যদিও মমতার সেই বিকল্প প্রস্তাব কারও কাছেই গ্রহণযোগ্য বলে মনে হয়নি।
মমতার দেওয়া সেই বিকল্প প্রস্তাব প্রসঙ্গে এদিনের সংবাদ সম্মেলন থেকে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান ‘আলোচনার মাধ্যমেই আমরা এই সমস্যা মেটাতে চাই এবং এই কারণেই ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার, সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকার এবং বাংলাদেশকে সঙ্গে নিয়েই একটা চুক্তি পৌঁছাতে হবে। মনে রাখতে হবে সংলাপের মধ্যে দিয়েই আমরা বাংলাদেশের সঙ্গে স্থলসীমান্ত চুক্তি সম্পাদিত করেছি’।
বাংলাদেশের সাধারণ নির্বাচনের আগে তিস্তা সমস্যা সমাধানের কোন সম্ভাবনা আছে কি না সে প্রশ্নের উত্তরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন ‘এই সমস্যা মেটাতে কেন্দ্রের সরকার প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। আমি নিজেও তিস্তা সমাধানের ব্যাপারে আশাবাদী। কিন্তু এই ধরনের জটিল কূটনৈতিক সমস্যা সমাধানের জন্য কোন নির্দিষ্ট সময় বেঁধে দেওয়া সম্ভব নয়’।
এদিন দিল্লিতে এই সংবাদ সম্মেলনে সুষমা স্বরাজ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন দুই পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী এম.জে.আকবর ও ভি.কে.সিং এবং পররাষ্ট্র সচিব এস.জয়শঙ্কর প্রমুখ।
– See more at: http://www.bd-pratidin.com/international-news/2017/06/05/237831#sthash.2birPwDT.dpuf

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here