মাস্ক না পরায় ৯১ জনকে জরিমানা

0
114

নিজস্ব প্রতিবেদক : করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় ওয়েভ মোকাবেলায় শতভাগ মাস্ক পরিধান নিশ্চিতকরণের নানা উদ্যোগ গ্রহণ করেছে যশোর জেলা প্রশাসন। জেলার মানুষকে মাস্ক পরায় উৎসাহিত করার লক্ষে আজ অনুষ্ঠিত হবে ১০ মিনিটের প্রতীকী অবস্থান। এলক্ষে যশোর জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে মঙ্গলবার কালেক্টরেট সভা কক্ষে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে ‘মাস্ক ব্যবহার ব্যতিত প্রবেশ নিষেধ অথবা মাস্ক পরিধান করুন সেবা নিন’ শ্লোগান সম্বলিত ব্যানার নিয়ে সরকারি, বেসরকারি সকল প্রতিষ্ঠানের সামনে অবস্থান কর্মসূচিতে অংশ গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানানো হয়।

জানানো হয় শতভাগ মাস্ক পরিধান নিশ্চিতকরণের লক্ষ্যে জেলায় অভিযান, মোবাইল কোর্ট পরিচালিত হচ্ছে একই সাথে মাস্ক ক্রয়ে অসমর্থদের মাঝে মাস্ক বিতরণ করা। মঙ্গলবার জেলায় ৯১ টি মামলায় ২৬ হাজার ৯৫০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে যশোরের জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান বলেছেন শীতে করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ধাপের সংক্রমন রোধে মানুষকে মাস্ক পরতেই হবে। কিন্তু বর্তমানে মানুষ মাস্ক পরছেন না। মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করণে স্থানীয়দের উদ্যোগ হিসেবে প্রতিটি সরকারি, বেসরকারি অফিস ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে স্ব স্ব ব্যানারে ১০ মিনিট প্রতীকী অবস্থান কর্মসূচি পালন করা হবে। এর মাধ্যমে মাস্ক পরার বিষয়ে সচেতনতা বড়বে। একই সাথে জেলা ইমাম পরিষদের নেতৃবৃন্দকে বলা হয়েছে মসজিদে মাস্ক পরে ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে যেন মুসল্লিরা নামাজ পড়েন।

যশোরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক রফিকুল হাসান জানান বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ছাড়াও পালবাড়ি, মনিহার, মুড়লী, চাঁচড়া, শেখহাটি হাইকোর্টের মোড়ে এনজিও কর্মীরা প্রতীকী অবস্থান কর্মসূচি পালন করবেন।

মাস্ক পরিধান নিশ্চিতকরণের লক্ষ্যে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগ জেলার আট উপজেলায় অভিযান, মোবাইল কোর্ট ও মাস্ক ক্রয়ে অসমর্থদের মাঝে মাস্ক বিতরণ করা হয়। ৯১ টি মামলায় ২৬,৯৫০ টাকা জরিমানা আদায় করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এরমধ্যে যশোর শহরের দড়াটানা মোড়ে এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট কৃষ্ণ চন্দ্র দরিদ্রদের মাঝে মাস্ক বিতরণ করেন। এ সময় একটি মামলায় ৩০০ টাকা জরিমানা করেছেন। অভয়নগরে মাস্ক ব্যবহার না করায় ৪৯ জনের কাছ থেকে ৪ হাজার ৬৫০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। প্রায় ৩০০ জনকে অন দ্য স্পট মাস্ক কিনতে বাধ্য করাসহ উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সামর্থ্যহীনদের মধ্যে ৩০টি মাস্ক বিতরণ করা হয়েছে। বাঘারপাড়া উপজেলায় বাঘারপাড়া বাজার ও চাড়াভিটা বাজারে অভিযান চালিয়ে মাস্ক না থাকায় ৭ জনের কাছ থেকে ২হাজার ৯শ’ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া ৮ জনকে ১০ টি করে মাস্ক কিনতে বাধ্য করা হয়। কেশবপুরে ২৯ টি মামলায় ১৩ হাজার ৮০০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। এসময় অসমর্থদের মাঝে প্রায় ৩০০ মাস্ক বিতরণ করা হয়। চৌগাছায় দুইটি মামলায় ৫০০ টাকা, মণিরামপুরে ২ টি মামলায় ৪০০ টাকা, শার্শায় ৬ টি মামলায় ৯৫০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।