যশোরের যশ, খেজুরের রস , রাজগঞ্জ ত্রলাকায় খেজুরের রস সংগ্রহে গাছিদের কর্মব্যাস্ততা শুরু

0
1818
উত্তম চক্তবর্তী : প্রকৃতিতে শীতের আমেজ এসে গেছে । সকাল-সন্ধ্যা নিয়ম করেই ‘প্রকৃতির ঘোমটা’ কুয়াশার চাঁদরে ঢাকা পড়ে মেঠোপথ । আর এর মধ্যেই শীতের উপাদেয় খাবার খেজুরের রস সংগ্রহে ব্যস্ত হয়ে গেছেন গাছিরা । যশোরের যশ, খেজুরের রস এই খ্যাতি দীর্ঘ দিনের । তাই কার্তিক মাস শুরুর সঙ্গে সঙ্গে গাছিরা খেজুর গাছ ছেঁটে রস সংগ্রহ ও গুড় তৈরির প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছেন এ এলাকার কৃষকরা । যশোরের পার্শ্ববতী উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের গাছিরা এখন খেজুর গাছ কাটতে শুরু করেছেন । উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম ঘুরলে এখন খেজুর গাছ ছাঁটার দৃশ্য চোখে পড়ে । আগাম গুড় ও পাটালি উঠলে লাভও বেশ ভালোই হয় । সেই আশাতেই চলতি বছরও গুড় তৈরির দিকে ঝুঁকছে গাছিরা । উপজেলার সাহাপুর গ্রামের এক কৃষক  জানান, তিনি অনেক বছর থেকেই খেজুর গাছ থেকে রস সংগ্রহ করছেন । এ রস থেকে তিনি গুড় ও পাটালি তৈরি করে  উপজেলার বিভিন্ন  বাজার নিয়ে বিক্রি করে থাকেন । আগাম গুড় ও পাটালির দাম ভাল পাওয়া যায় ৷
 এরই মধ্যে অনেক কৃষক গুড় তৈরির সরঞ্জাম এমনকি জ্বালানিও সংগ্রহ করে ফেলেছেন । আরো জানাযায়, খেজুর রস থেকে গুড় তৈরির কাজ শুরু করতে প্রাথমিক সরঞ্জাম কলস ও জ্বালানি সংগ্রহ হয়ে গেছে । সরজমিনে গিয়ে উপজেলার, গ্রাম ও তার আশপাশের কয়েকটি গ্রাম ঘুরে দেখা গেছে, সকাল থেকেই ব্যস্ত গাছিরা দা, ঠুঙি, দড়ি ও মাটির কলস (ভাড়) নিয়ে ছুটে চলেছেন নির্দিষ্ট গন্তব্যে । গাছিদের প্রক্রিয়াজাত করা খেজুরের গুড়, পাটালি বা রস দিয়েই কয়েকদিন পরেই মুখরোচক পিঠা, পুলি, পায়েস তৈরির ধুম পড়বে গ্রামের গৃহস্থ বাড়িতে । শুধু কি তাই? খেজুরের গুড় বা রস দিয়ে তৈরি মুড়ি, চিড়ার মোয়া লেপমুড়ি দেওয়া শীতের সকালে খাওয়ার মজা তো উপভোগ করেন আবাল বৃদ্ধ বনিতা সবাই ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here