যশোরে পাওনা ৩৬ লাখ টাকা না পেয়ে ব্যবসায়ীর আত্মহত্যার ঘটনায় মামলা

0
343

বিশেষ প্রতিনিধি : পাওনাদারের কাছ থেকে বাকীকৃত ৩৬ লাখ টাকা না পেয়ে ইমাদুল হক নামে এক ব্যবসায়ী আত্মহত্যা করতে বাধ্য হওয়ার ঘটনায় দুই সহোদরের বিরুদ্ধে আত্মহত্যা প্ররোচনা হিসেবে কোতয়ালি মডেল থানায় শনিবার রাতে কোতয়ালি মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলায় আসামীরা হচ্ছে,যশোর শহরের বেজপাড়া সিকদার পুকুর পাড়ার মৃত হাজারী লাল সুরের ছেলে প্রদীপ কুমার সুর ওরফে মনি সুর ও তার ভাই বাবু সুর।
সদর উপজেলার ভায়না দোরাস্তা মোড়ের মৃত ইমাদুল হকের স্ত্রী মোছা ফেরদৌসী বেগম বাদি হয়ে শনিবার ৬ জুন রাতে কোতয়ালি মডেল থানায় উক্ত দুই সহোদরের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত এজাহারে বলেছেন, তার স্বামী পাট,ছোলা ও মুসুরী ডাউলের ব্যবসা করে। ভায়না দোরাস্তা মোড়ে ইমাদুল হকের দোকান রয়েছে। প্রদীপ কুমার সুর ওরফে মনি সুর ও বাবু সুর উক্ত দোকান হতে ৩৬লাখ টাকার মালামাল বাকী নেয়। ইমাদুল হক বিভিন্ন ব্যবসায়ীর কাছ থেকে বাকীকে মালামাল নিয়ে আসায় তিনিও দেনাদারে পরিণত হয়েছেন। পাওনাদারের হাত থেকে রক্ষা পেতে সে তার স্ত্রীর কাছে প্রদীপ কুমার সুর ও বাবু সুরের কাাছে ৩৬লাখ টাকা পাবার বিষয়টি জানায়। টাকা না পেলে তার আত্মহত্যা ছাড়া আর কোন উপায় থাকবেনা। গত ৫ জুন সকাল ৬ টার পর ইমাদুল বাড়ি হতে দোকানের উদ্দেশ্যে বের হয়। দোকানের পাশে মোটর সাইকেল গ্যারেজের আড়ার সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে।#