যশোর বোর্ডে ১৪ জনের নতুন জিপিএ-৫, ফেল থেকে পাস ২১ পরীক্ষার্থী

0
78

নিজস্ব প্রতিবেদক : এইচএসসি পরীক্ষার খাতা পুনঃনিরীক্ষণে যশোর বোর্ডে ফেল থেকে পাস করেছে ২১ জন পরীক্ষার্থী। আর নতুন জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৪ জন পরীক্ষার্থী।

রবিবার (১৩ মার্চ) এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার খাতা পুনঃনিরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। যশোর বোর্ডের প্রকাশিত ফল পর্যালোচনা করে এসব তথ্য জানান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক প্রফেসর মাধব চন্দ্র রুদ্র।

পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক জানান, এইচএসসি পরীক্ষার খাতা পুনঃনিরীক্ষণের জন্য যশোর বোর্ডে ৪ হাজার ৫৬৩ জন শিক্ষার্থী আবেদন করে। তাদের মধ্যে ৪৪ জন শিক্ষার্থীর ফলাফল পরিবর্তন হয়েছে। নতুন করে ‘এ’ গ্রেড থেকে ৯ জন ‘এ প্লাস’, ‘এ মাইনাস’ থেকে ৫ জন ‘এ প্লাস’ ও ৪ জন ‘এ’ গ্রেড, ‘বি’ গ্রেড থেকে ৪ জন ‘এ মাইনাস’, ‘সি’ গ্রেড থেকে ১ জন ‘বি’ গ্রেড, ফেল থেকে ৫ জন ‘এ মাইনাস’, ১৪ জন ‘বি গ্রেড’ ও ২ জন ‘সি গ্রেড’ পেয়েছে।

করোনার কারণে দেড় বছর সরকারি ক্লাস না হওয়ায় ২০২১ খ্রিষ্টাব্দে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা নেয়া হয় তিনটি নৈর্বাচনিক বিষয়ে। কাঙ্খিত ফল না পেয়ে পরীক্ষার্থীরা গত ১৪ ফেব্রুয়ারি থেকে ২০ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন করেছেন। গত ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১ খ্রিষ্টাব্দে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এ পরীক্ষায় মোট ১৩ লাখ ৬ হাজার ৭১৮ জন পরীক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছিলেন। নিয়মিত ১৩ লাখ ৭১ হাজার শিক্ষার্থীর হিসেবে এইচএসসি ও সমমানে পাসের হার ৯৫ দশমিক ২৬ শতাংশ। এবারই সবচেয়ে বেশি শিক্ষার্থী জিপিএ ফাইভ পেয়েছিলেন। এর সংখ্যা ১ লাখ ৮৯ হাজার ১৬৯। মোট ১৪ লাখ ৩ হাজার ২৪৪ জন পরীক্ষার্থী এ পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিলেন। গত ২ ডিসেম্বর থেকে ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। পরীক্ষা শেষের ৪৪ দিন পর ফল প্রকাশিত হয়। গত ১৩ ফেব্রুয়ারি ফলাফল প্রকাশিত প্রকাশিত হয়। যশোর বোর্ডে ৯৮ দশমিক ১১ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছিলো। জিপিএ-৫ পেয়েছিলেন ২০ হাজার ৮৭৮ জন।