যশোর শেখহাটি এলাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী কাজী জুয়েল তিন সহযোগি ও অস্ত্রগুলিসহ গ্রেফতার

0
887

বিশেষ প্রতিনিধি : র‌্যাবের হাতে যশোর সদর উপজেলারর শেখহাটি এলাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী হত্যাসহ একাধিক মামলার আসামি কাজী জুয়েল তিনসহযোগীসহ আটক হয়েছে। এসময় তাদের কাছ থেকে অস্ত্র,গুলি ও মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়। এঘটনায় কোতয়ালি থানায় অস্ত্র ও মাদকদ্রব্য আইনে পৃথক দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
র‌্যাব-৬ সূত্রে জানা যায়, ১৭ মে বুধবার ভোর ৪ টায় ব্যাব-৬ যশোর ক্যাম্পের একটি টিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শেখহাটি এলাকার একটি ছাত্রাবাসে অভিযান চালিয়ে কাজী আলমের ছেলে কাজী জুয়েল,একই এলাকার মৃত আমির হোসেনের ছেলে শাকিব হাসান রাসেল,ও করিম গাজির ছেলে সুমন হোসেনকে আটক করে। এসময় আটককৃতদের কাছ থেকে ২ টি ওয়নসুটারগান, ২ টি এয়ার গান, ১টি রাইফেল, ৫৪০ রাউন্ড গুলি ও ১শ পিচ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এঘটনায় র‌্যাব-৬ এর ডিএডি কামরুজ্জামান বাদি হয়ে অস্ত্র ও মাদক দ্রব্য আইনে কোতয়ালি থানায় পৃথক দুটি মামলা দায়ের করেন। অস্ত্র মামলায় কাজী জুয়েল ও শাকিব হাসান রাসেলকে এবং মাদক ও অস্ত্র উভয় মামলায় সুমনকে আসামি করা হয়েছে। র‌্যাবের মামলায় শেখহাটি পূর্বপাড়া মসজিদের পাশ থেকে এদেরকে আটক দেখানো হয়েছে।
উল্লেখ্য,কয়েকমাস আগে কাজি জুয়েল ও তার স্ত্রী অস্ত্রসহ পুলিশের হাতে আটক হয়। এছাড়া জুয়েলের নামে কোতয়ালি থানায় হত্যা,ধর্ষন,চাঁদাবাজিসহ প্রায় অর্ধডজন মামলা রয়েছে। এলাকার সাধারন মানুষ জুয়েল বাহিনীর হাতে জিম্মি হয়ে পড়েছে। তাছাড়া,সংখ্যালঘু সম্প্রদায় জুয়েলের নীরব চাঁবাজির শিকার। জুয়েলের এসব সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের পিছনে তার পিতা কাজি আলমের ইন্ধন রয়েছে বলে শেখহাটি এলাকায় জনশ্রুতি রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here