শার্শায় গরীব-দুস্থ্যদের মাঝে নগট টাকা-চেক ও ঢেউটিন বিতরণ করলেন এমপি শেখ আফিল উদ্দিন

0
375

আশানুর রহমান আশা-,বেনাপোল: ৮৫ যশোর-১ (শার্শা)’র সাংসদ আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিন বলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন ছিল অভাগা বাংলার মানুষকে পরাধীনতার শিকল থেকে মুক্ত করে স্বাধীন করতে হবে। বাংলার মানুষ অন্ন পাবে, বাসস্থান পাবে, চিকিৎসা পাবে, শিক্ষা পাবে। এদেশের মানুষ একদিন বিশ্বের দরবারে মাথা উঁচু করে দাড়াবে। বঙ্গবন্ধুর সেই লালিত স্বপ্নকে তার গুণধর কণ্যা শেখ হাসিনা দলীয় আওয়ামীলীগ নেতা-কর্মীদের সাথে নিয়ে দ্রুত গতিতে বাস্তবায়ন করে চলেছেন। সোমবার বেলা ১১টার সময় শার্শা উপজেলা পরিষদের হলরুমে উপজেলা প্রশাসন কতৃক আয়োজিত সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিনের ঐচ্ছিক তহবিল হতে প্রাপ্ত অর্থ দিয়ে গরীব, অসহায় ও দ্বুস্থ্যদের মাঝে বাসস্থান গড়ার জন্য নগদ টাকা, চেক ও ঢেউটিন বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধাণ অতিথি হিসাবে একথাগুলী বলেন তিনি।

শার্শা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুস সালাম এঁর সভাপতিত্বে উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধাণ অতিথি শেখ আফিল উদ্দিন এমপি আরো বলেন, বাংলার অসহায় গরীব দুখীদের ভালো বাসতে একমাত্র শেখ হাসিনা-ই পারেন। কারণ তিনি বঙ্গবন্ধুর কন্যা। যিনি বিপদে সকল মানুষের পাশে থেকে তাদের বাঁচার পথ দেখায়। যার দু’নয়ন কেবল এদেশের উন্নতির কথাই ভাবেন। তাইতো এদেশ আজ নি¤œ মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হয়েছে। সেসাথে এই ধারাবাহিকতা বজায় থাকলে কয়েক বছরের মধ্যে বাংলাদেশের মানুষ মধ্যম আয়ের দেশের বাসিন্দা হতে পারবে। তাই দলমত নির্বিশেষে শেখ হাসিনার দীর্ঘায়ু কামনা করে আগামী জাতীয় নির্বাচনে আবারো আওয়ামীলীগকে জয়ী করাতে হবে। তা-না হলে বাঙালী জাতি আবারো পিছিয়ে পড়বে।

এ সময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুস সালাম বলেন, প্রধাণ মন্ত্রী শেখ হাসিনার পাশাপাশি শার্শার এমপি শেখ আফিল উদ্দিন এলাকার মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে দীর্ঘদিন যাবত কাজ করে চলেছেন। স্থানীয় সকল ক্ষেত্রে উন্নয়নের পাশাপািশ নিজ অর্থায়নে কিছুদিন আগেই এক কোটি টাকা ব্যায়ে নাভারনের একটি অবহেলিত পল্লীতে খুবই নান্দনিক ব্রিজ নির্মাণ করে দিয়েছেন। আজ সেই এলাকা শহরের সকল সুযোগ সুবিধা পেয়ে উন্নতি লাভ করছে। আর সে এলাকাতেই স্থানীয় সকল বাড়ি হারা মানুষের বাড়ি করে দেওয়ার জন্য জমি নির্ধারণ করেছেন। এছাড়া প্রধাণ মন্ত্রীর এক চিঠির আলোকে জানাই, কেবল শার্শাতেই নয় সমগ্র বাংলাদেশের একটি মানুষও বাড়ি হারা থাকবে না। যাদের নিজেদের ১০ কাঠার নিচে জমি আছে কিন্তু ভালো মানের বাড়ি নেই। সেখানে এঁ সরকার মান সম্মত বাড়ি নির্মাণ করে দিবেন। যাদের জায়গা জমি কিছুই নেই, তাদেরকে জায়গা কিনে বাড়ি করে দিবেন। তাই, বারবার আওয়ামীলীগ সরকারকেই ভোট দিয়ে রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আনতে হবে।

আলোচনা সভা শেষে সাংসদ শেখ আফিল উদ্দিন দলীয় নেতা-কর্মী ও প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের সাথে নিয়ে গরীব ও দুস্থ্যদের মাঝে নগদ টাকা, চেক ও ঢেউটিন বিতরণ করেন।

এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন শার্শা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল হক মঞ্জু, সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব নুরুজ্জামান, যশোর জেলা পরিষদের সদস্য ইব্রাহিম খলিল, শার্শা উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোজাফফর হোসেন, শার্শা উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও যশোর জেলা পরিষদের সদস্য ওহিদুজ্জামান ওহিদ, সাধারণ সম্পাদক ও শার্শা সদর ইউপি চেয়ারম্যান সোয়ারাব হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মেহেদী হাসান, উলাশী ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আয়নাল হক, বাগ আঁচড়া ইউপি চেয়ারম্যান ইলিয়াছ কবির বকুল, কায়বা ইউপি চেয়ারম্যান হাসান ফিরোজ আহম্মেদ টিংকু, নিজামপুর ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম, ডিহি ইউপি চেয়ারম্যান হোসেন আলী, কায়বা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম, শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর রহিম সরদারসহ স্থানীয় আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ, ইউপি সদস্য ও প্রশাসনের কর্মকর্তাবৃন্দরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here