শ্যামকুড় যম্যমিয়া দাখিল মাদ্রাসার ঝড়ে উড়ে যাওয়া টিনের চাল অর্থের সংকটে সংস্কার করতে পারেনি কর্তৃপক্ষ

0
626

নিজস্ব প্রতিবেদক : অর্থের অভাবে ঘুর্নি ঝড়ে উড়ে যাওয়া টিনের চাল এখনও সংস্কার করতে পারেনি মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ। । ফলে শিক্ষার্থীদের পাঠদানে চরম ভাবে বিঘ্ন ঘটছে।

জানা যায়, মণিরামপুর উপজেলার শ্যামকুড় যম্যমিয়া দাখিল মাদ্রাসার ২ টি আধা পাকা ভবনের অর্ধেকাংশ টিনের চাল মে মাসের প্রথম দিকে প্রাকৃতিক ঘুর্নি ঝড়ে উড়ে যায়। মাদ্রাসা কতৃপক্ষ নিজস্ব অর্থে একটি ভবনের টিনের চাল সংস্কার করতে পারলেও অন্যটির চাল অর্থের অভাবে সংস্কার করতে পারেনি। ফলে শিক্ষাথীদের লেখাপড়ার জন্য ও ক্লাস পরিচালনার ব্যপক সমস্যা দেখা দিচ্ছে। বর্তমান অর্ধবার্ষিকী পরীক্ষা চলছে। একটি ভবনের চাল না থাকায় সকল পরীক্ষাথীর্র অপর ভবনে ঠাসাঠাসি করে পরীক্ষা নিতে হচ্ছে। প্রতিষ্ঠানে কোন সরকারী ভবন না হওয়ায় প্রতি বছর মাদ্রাসা কতৃপক্ষের এমন সমস্যায় পড়তে হয়। গত বছরে ঘুর্নি ঝড়ে ভবনের চাল উড়ে যাওয়ায় শিক্ষকদের প্রায় লাখ টাকা অর্থ দিয়ে ঐ চাল সংস্কার করেছিলেন। এ বছর একটি ঘরের চাল সংস্কার করতে শিক্ষকদের প্রায় ৪০ হাজার টাকা ব্যয় হয়েছে। অর্থ সংকটের কারনে শিক্ষকরা অপর ভবনের ঝড়ে উড়ে যাওয়া চালটি এখনও সংস্কার করতে পারেনি। এ বিষয়ে মাদ্রাসার সুপার নজরুল ইসলাম জানান, প্রতি বছর মাদ্রাসাটি ঝড়ের কবলে পড়ে। ক্ষতি হয় প্রায় াখ টাকা। এ বছর ঝড়ে দুটি ভবনের চালের অধৈকাংশ উড়ে গিয়েছে। তার একটি ভবনের চাল সংস্কার করা হয়েছে। অপর ভবনের চাল অর্থের অভাবে সংস্কার করতে পারেনি। তাই আমি ঝড়ে উড়ে যাওয়া টিনের চাল সংস্কারের জন্য অতি দ্রুত আর্থিক সহয়তার জন্য মণিরামপুরের এমপি স্বপন ভট্রাচার্য্য ও সরকারের সংশ্লিষ্ট দপ্তরের প্রতি আশু হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here