সাংবাদিকরা হলেন জাতির বিবেক : স্বপন ভট্টাচার্য

0
76

মণিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি : এলজিআরডি মন্ত্রণালয়ের পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্ এমপি বলেছেন, সাংবাদিকতা হলো মহান পেশা, সাংবাদিকরা হলেন জাতির বিবেক। তাদের সঠিক লেখনির মাধ্যমে দেশের চলমান উন্নয়নের চিত্র জাতির কাছে তুলে ধরতে হবে। এর ফলে সমাজ থেকে অন্যায়-অবিচার ও দুর্নীতি প্রতিরোধে সহায়ক ভ’মিকা রাখবে।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে মণিরামপুর প্রেসক্লাবের নবনির্বাচিত কমিটির অভিষেক ও পরিচিতি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। প্রেসক্লাবের সভাপতি ফারুক আহম্মেদ লিটনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি আরো বলেন, সাংবাদিকদের কলমের সঠিক লেখনি জাতির উন্নয়ন ও কল্যাণে মঙ্গল বয়ে আনে। সাংবাদিকদের কলম বন্দুকের গুলির মতন সত্যের দিকে চলে। রাজনীতিতে মতাদর্শ থাকতে পারে, কিন্তু দেশমাতৃকা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে দেশের উন্নয়নের জন্য সকলকে একসাথে কাজ করতে হবে। জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুও এই নীতিতে বিশ্বাসী ছিলেন। তাই দেশাত্ববোধের চেতনায় সেদিন সাংবাদিকরাই এগিয়ে এসেছিল।

প্রেসক্লাবের সম্পাদক মোতাহার হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম সিদ্দিক ও সিনিয়র সাংবাদিক মোহাম্মদ বাবুল আক্তারের পরিচালনায় প্রধান অতিথি এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য এসময় বলেন, তিনি মণিরামপুরকে আধুনিক শহর হিসেবে গড়তে চান। এ ক্ষেত্রে সাংবাদিকদের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন। প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ ও মাদক কারবারি ও দুনীর্তিবাজদের প্রতিরোধে দলমত নির্বিশেষে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার নির্দেশ দিয়েছেন। যে কারনে এসব অপরাধের সাথে যারাই জড়িত থাকুক, আইন-শৃংখলা বাহিনীকে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহনে নির্দেশ প্রদান করেন। সরকার দেশকে উন্নত দেশে পরিনত করতে বিভিন্ন ধরনের প্রকল্প গ্রহন করে তা বাস্তবায়ন করে চলেছেন। শহরে সকল নাগরিক সুবিধা গ্রামে পৌছে দিতে ইতোমধ্যে সরকার ইতোমধ্যে কার্যকরী উদ্যোগ গ্রহন করেছেন। এসময় তিনি পৌরশহরের যানজট নিরসনে বাইপাস সড়ক নির্মাণসহ বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের কথা তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পৌর মেয়র কাজী মাহমুদুল হাসান, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাজমা খানম। অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান যুবলীগের আহবায়ক উত্তম চক্রবর্র্তী বাচ্চু, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কাজী জলি আক্তার, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা শুভ্রারানী দেবনাথ, প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সেহেলী ফেরদৌস, বাজার বণিক সমিতির সভাপতি বিশিষ্ট সমাজ সেবক অরুন কুমার নন্দন, অ্যাডভোকেট মকবুল হোসেন, অ্যাডভোকেট বশির আহম্মেদ খান, ইউপি চেয়ারম্যান মনিরুজ্জামান মনি, উপজেলা রিসোর্স সেন্টারের কর্মকর্তা মকবুল হোসেন, কমরেড আব্দুল মজিদ, তপন কুমার পবন, মামুন-অর রশিদ জুয়েল, প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য একেএম নিছার উদ্দিন খান আজম, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি অধ্যাপক আব্বাস উদ্দিন, এসএম মজনুর রহমান, সহ-সভাপতি জিএম ফারুক আলম, যুগ্ম সম্পাদক আছাদুজ্জামান রয়েল, নির্বাহী সদস্য গীতারানী কুন্ডু, সদস্য ইলিয়াস হোসেনসহ বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকতা, ব্যবসায়ী প্রতিনিধি, সাংবাদিকসহ আইনশৃংখলা বাহিনীর বিভিন্ন পর্যায়ের সদস্যবৃন্দ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here