‘স্প্লিন্টারের আঘাতেই কর্নেল আজাদের মৃত্যু’

0
263

নিজস্ব প্রতিবেদক : সিলেটে জঙ্গি আস্তানা আতিয়া মহলের পাশে বোমা বিস্ফোরণে আহত র‌্যাবের গোয়েন্দা শাখার প্রধান লে. কর্নেল আবুল কালাম আজাদ মারা গেছেন। আজ শুক্রবার ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের মর্গে তার লাশের ময়না তদন্ত সম্পন্ন হয়েছে।

ময়নাতদন্ত শেষে ঢামেক হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ জানান, বোমা বিস্ফোরণের স্প্লিন্টারের আঘাতে লে. কর্নেল আবুল কালাম আজাদের মৃত্যু হয়েছে।

তিনি আরও জানান, একটি স্প্লিন্টার তার বাম চোখ দিয়ে ঢুকে ব্রেনে অাঘাত করে। ময়নাতদন্তে ব্রেন থেকে একটি স্প্লিন্টার পাওয়া গেছে।

এর আগে আজ শুক্রবার সকাল পৌনে ৮টার দিকে লে. কর্নেল আবুল কালাম আজাদের লাশ হাসপাতালের মর্গে পৌঁছে। সকাল ৯টায় ময়নাতদন্ত শুরু হয়। ১০টায় শেষ হয়। ময়নাতদন্তের পর লাশ নিয়ে গেছেন ক্যান্টনমেন্ট থানা পুলিশ ও সদর দফতরের র‌্যাব সদস্যরা।

র‌্যাব সদর দফতর থেকে জানানো হয়েছে, মরহুমের ১ম নামাজে জানাজা বাদ জুমা সেনানিবাস কেন্দ্রীয় মসজিদে এবং ২য় নামাজে জানাজা র‌্যাব সদর দফতরে বিকেল ৩টায় অনুষ্ঠিত হবে। এরপর ঢাকা সামরিক কবরস্থান বনানীতে তাকে মরদেহ দাফন করা হবে।

উল্লেখ্য, সিলেটে জঙ্গি আস্তানা আতিয়া মহলে সেনা কমান্ডোদের অভিযানের মধ্যে শনিবার সন্ধ্যার পর কাছের এলাকায় বিস্ফোরণে আহত হন আজাদ। ওই বিস্ফোরণে দুই পুলিশ সদস্যসহ ছয়জন নিহত হন।

সেনা কর্মকর্তা আজাদকে প্রথমে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখান থেকে তাকে হেলিকপ্টারে করে ঢাকা সিএমএইচে আনার পরদিন সিঙ্গাপুরে পাঠানো হয়।

সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল আজাদকে। দুদিন পর তাকে ফিরিয়ে আনা হয়। বুধবার রাত সাড়ে ৮টায় ঢাকা আনার পর ফের সিএমএইচে নেওয়া হয় তাকে।

আর বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টা ৫ মিনিটে রাজধানীর সিএমএইচ-এ চিকিৎসাধীন অবস্থায় কর্নেল আবুল কালাম আজাদের মৃত্যু হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here