সড়ক-মহাসড়ক অবৈধ দখলমুক্ত হইবে কবে?

0
199

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা শহরে ময়মনসিংহ-টাঙ্গাইল মহাসড়ক দখল করিয়া একটি অবৈধ বাস টার্মিনাল স্থাপন করা হইয়াছে। সড়কটির অধিকাংশ জায়গা জুড়িয়া রাস্তার দুই পার্শ্বে দীর্ঘ লাইনে রাখা হইতেছে শত শত বাস ও অন্যান্য যানবাহন। পাশাপাশি ব্যস্ততম এই মহাসড়কটির উপরই চলিতেছে যাত্রী উঠানো-নামানোর কাজ। ফলে প্রায়শই সড়কটিতে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। অথচ শহরটিতে একটি বাস টার্মিনাল আছে। জানা যায়, ২০০৬ সালে প্রায় দেড় কোটি টাকা ব্যয়ে পৌর বাস টার্মিনাল নামে এই বাস টার্মিনালটি নির্মাণ করা হইয়াছিল। কিন্তু পরিতাপের বিষয় হইল, বর্তমানে তাহা টার্মিনাল হিসাবে নহে, বরং গাড়ি মেরামতের গ্যারেজ হিসাবেই ব্যবহূত হইতেছে।

মুক্তাগাছা একটি উদাহরণ মাত্র। প্রকৃতপক্ষে সারা দেশেই সড়ক-মহাসড়কের উপর বত্সরের পর বত্সর ধরিয়া গড়িয়া তোলা হইয়াছে এমন অসংখ্য বাস টার্মিনাল। এই সকল অবৈধ টার্মিনাল নিয়ন্ত্রণ করিতেছেন স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যক্তিবর্গ। আবার কোথাও পৌরসভা ও উপজেলা পরিষদ হইতেও এই ধরনের টার্মিনাল ইজারা দেওয়া হইতেছে। বলিবার অপেক্ষা রাখে না যে, এই সকল অবৈধ টার্মিনালই মহাসড়কে যানজটের অন্যতম প্রধান কারণ। একটি গবেষণা প্রতিবেদন হইতে জানা যায়, সড়কের ভিতরে ও সড়ক ঘেঁষিয়া সড়ক ও জনপথ (সওজ) অধিদপ্তরের জমিতে গড়িয়া ওঠা হাটবাজার ও বাস-ট্রাক স্ট্যান্ডের কারণে ঘটিতেছে ৬৯ শতাংশ সড়ক দুর্ঘটনা। এইসব স্থানে দুর্ঘটনায় প্রতি বত্সর গড়ে মারা যাইতেছে তিন হাজারেরও অধিক মানুষ। উপরন্তু এই সমস্ত অবৈধ টার্মিনালের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হয় সংশ্লিষ্ট মহাসড়কও। এইসব টার্মিনালকে ঘিরিয়া জমিয়া ওঠে ময়লা-আবর্জনার স্তূপ। ফলে অল্প বৃষ্টিতেই মহাসড়কগুলি কাদায়-পানিতে সয়লাব হইয়া যায়।

মহাসড়ক দখলমুক্ত রাখিবার অঙ্গীকার অনেক পুরাতন। কিন্তু বিভিন্ন সময়ে দেখা গিয়াছে যে, সড়ক-মহাসড়কে এইসব অবৈধ টার্মিনাল উচ্ছেদ করিবার পর কিছুদিন যাইতে না যাইতেই তাহা পুনরায় পূর্বের অবস্থায় ফিরিয়া আসে। কিন্তু বাস্তবতা হইল, ক্রমবর্ধমান সড়ক দুর্ঘটনা হ্রাস করিতে এবং যান চলাচল স্বাভাবিক রাখিতে সড়ক-মহাসড়ক হইতে সর্বপ্রকার অবৈধ টার্মিনাল ও স্থাপনা অপসারণের কোনো বিকল্প নাই। এই ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কঠোর ভূমিকাই অধিক প্রত্যাশিত। তাহারা যদি কোনো ব্যক্তি বা গোষ্ঠীকে প্রাধান্য না দিয়া, দেশের যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতিকে বড় করিয়া দেখে এবং এই ব্যাপারে আইনানুগ পদক্ষেপ গ্রহণ করেন তাহা হইলে পরিস্থিতির পরিবর্তন সময়ের ব্যাপার মাত্র।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here