২০ কেজি স্বর্ণ চুরি মামলায় শহিদুল ইসলাম ও অলিউল্লাহর ২ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর

0
184


নিজস্ব প্রতিবেদক : যশোর বেনাপোল কাস্টমস হাউজের ভোল্ট ভেঙে প্রায় ২০ কেজি স্বর্ণ চুরি মামলায় কাস্টমসের সাবেক সহকারি রাজস্ব কর্মকর্তা ভোল্ট ইনচার্জ শহিদুল ইসলাম ও অলিউল্লাহর ২ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। রোববার আসামিদের রিমান্ড আবেদনের শুনানী শেষে জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মামুনুর রহমান এ আদেশ দিয়েছেন। আসামি শহিদুল ইসলাম বরিশিাল অগৈলঝাড়ার চেঙ্গুটিয়া গ্রামের মৃত আব্দুর রব মৃধা ও অলিউল্লাহ ব্রহ্মনবাড়িয়া বকসার চারুয়া গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে।
মামলার অভিযোগে জানা গেছে, ২০১৯ সালের ৭ নভেম্বরের রাত ৮ টা থেকে ১১ নভেম্বর সকাল ৮টার মধ্যে যেকোনো সময় বেনাপোল কাস্টমস হাউজের পুরাতন ভবনের ২য় তলার গোডাউনের তালা ভেঙ্গে চোরেরা ভোল্টের তালা খুলে ১৯ কেজি ৩শ’১৮ দশমিক ৩ গ্রাম সোনা চুরি করে নিয়ে যায়। যার মুল্য ১০ কোটি তেতাল্লিশ লাখ ১৭ হাজার ৩শ’৬২ টাকা। এ ছাড়া গোডাউনের বিভিন্ন লকারে সোনসহ মূল্যবান জিনিপত্র ছিল। সেগুলো অক্ষত ছিলো। ঘটনার সময় সিসি ক্যামেরা বন্ধ ছিলো। বিষয়টি জানাজানি হলে কাস্টম হাউজের রাজস্ব কর্মকর্তা এমদাদুল হক বাদী হয়ে অপরিচিত ব্যক্তিদের আসামি করে পোর্ট থানায় মামলা করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে এ গোডাউনে সাবেক কর্মরত কয়েকজন কর্মকতাকে আটক করে আদালতে সোর্পদ করেন। তাদের দেয়া জবানবন্দি অনুযায়ী ওই দুই সাবেক গোডাউন ইনচার্জ শহিদুল ইসলাম ও অলিউল্লাহকে গত ৭ জানুয়ারি পুলিশ ঢাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। এরপর ওই দুইজনের ১০ দিন করে রিমান্ড চেয়ে আদালতে সোপর্দ করেন। গতকাল আসামিদের রিমান্ড আবেদনের শুনানী শেষে বিচারক প্রত্যেকের ২ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।