প্রচণ্ড তাপদাহে পুড়ছে শার্শার গোটাঅঞ্চল। মাত্রাতিরিক্ত গরমে নাকাল খেটে খাওয়া শ্রমজীবি সহ সকল শ্রেনীর মানুষ।

0
249

আরিফুজ্জামান আরিফ : প্রচণ্ড তাপদাহে পুড়ছে বাগআঁচড়া নভারণ বেনাপোল সহ শার্শা গোটা অঞ্চল। মাত্রাতিরিক্ত গরমের কারণে নাকাল খেটে খাওয়া মানুষ। তীব্র গরমে দেখা দিচ্ছে নানা ধরনের শারীরিক সমস্যা। জরুরী কাজ ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছেন না সাধারণ মানুষ। এ অবস্থায় বিশেষ করে শিশু ও বৃদ্ধদের সর্তক থাকার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা।

৪/৫ দিন ধরে চলা এ তাপদাহে পুড়ছে প্রকৃতি। সঙ্গে যোগ হয়েছে আর্দ্রতা। সকালের দিকে আর্দ্রতা ৯০ শতাংশের ওপরে থাকছে। ফলে ঘেমে-নেয়ে একাকার হচ্ছে মানুষ। যশোর জেলায় তাপমাত্রা ৩৮ ডিগ্রি হলেও বাগআঁচড়া সহ শার্শ অঞ্চলে অনুভূত হচ্ছে ৪৬ ডিগ্রির মতো গরম। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে অবশ্য আর্দ্রতা কমে আসছে।

আবহাওয়া অফিসের মতে, যশোরসহ খুলনা বিভাগের পাঁচ জেলায় মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বিরাজ করছে। খাঁ খাঁ রোদে পুড়ছে গোটা অঞ্চল।
সকাল থেকেই সূর্য যেন আগুন ঝরাতে থাকে।মাঝদুপুরে প্রকৃতি নেয় অগ্নিরূপ। ভ্যাপসা গরমে একটু প্রশান্তির আশায় কেউ কেউ ভিড় জমাচ্ছেন সরবতের দোকানে। কাঠফাটা রোদে চিল-চাতকের মতো হাঁসফাঁসে হয়ে উঠেছে জনজীবন।

ফলে দিনের বেলা রাস্তাঘাট একপ্রকার ফাঁকা। একান্ত দরকার ছাড়া মানুষ রাস্তায় নামছেন না। যানবাহনের সংখ্যাও কম। গন্তব্যে পৌঁছুতে মানুষকে বেগ পেতে হচ্ছে। ভ্যান, নছিমন, ইজিবাইক সহ অন্যান্য ছোটখাট যানবাহন নিয়ে যারা রাস্তায় নামছেন, তারা অসহনীয় কষ্ট পাচ্ছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here