যশোরে সেনাবাহিনীর সিভিল পদে চাকুরী দেওয়ার প্রলোভনে মামলা দায়ের

0
268

বিশেষ প্রতিনিধি : সেনা বাহিনীর সিভিল পদে চাকুরী দেওয়ার প্রলোভন দিয়ে এক ব্যক্তির নিকট হতে নগদ ৫ হাজার টাকা নিয়ে ভূয়া যোগদান পত্র দেওয়ার অভিযোগে কোতয়ালি মডেল থানায় দু’জন প্রতারকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার মামলাটি দায়ের করেন যশোর সদর উপজেলার রামনগর পুকুর কুল মুড়োলী মোড়ের আজগর আলীর ছেলে আরিফুল ইসলাম। মামলার প্রতারক দুই আসামীরা হচ্ছে, খুলনা জেলার ফুলতলা উপজেলার আটরা গ্রামের মৃত আব্দুর রশীদের ছেলে আব্দুল আলীম ও যশোর সদর উপজেলার মন্ডলগাতী গ্রামের সিরাজ শিকদারের ছেলে মোস্তাফিজুর রহমান।
আরিফুল ইসলাম দায়েরকৃত এজাহারে বলেছেন, আব্দুল আলীমের সাথে তার পূর্ব পরিচিত। পরিচয়ের সূত্র ধরে উক্ত প্রতারক আব্দুল আলীম আরিফুল ইসলামকে সেনবাহিনীতে সিভিল ষ্টাফ পদে চাকুরী করে দেওয়ার লোক আছে বলে জানায়। আব্দুল আলীম তার সহযোগী মোস্তাফিজুর রহমানের কাছে নিয়ে পরিচয় করিয়ে দেয়। এক পর্যায় দু’জনে মিলে বাদিকে জানান,সেনা বাহিনীর সিএমএইচ এ র্ক্লাক কাম কম্পিউটার পদে চাকুরীর নিশ্চয়তার দিয়ে ৮লাখ টাকা দাবি করে। এক পর্যায় গত ১৩ নভেম্বর বিকেফ সাড়ে ৩ টায় যশোর শহরের ধর্মতলা মোড়ে যাত্রী ছাউনীর মধ্যে উক্ত দু’জন প্রতারক আরিফুল ইসলামের কাছ থেকে নগদ ৫ হাজার টাকা গ্রহন করে। পরবর্তীতে তারা সেনা বাহিনীর সিভিল পদে লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষার একটি পত্র দেন। আরিফুল ইসলামের উক্ত পত্রে ১৫/১৬ নভেম্বর তার লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা বলা হয়েছে। উক্ত প্রতারক আরো বলেন,লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় উর্ত্তীণ হলে আগামী ১০ ডিসেম্বর নিয়োগপত্র প্রদান করা হবে। তাদের দেওয়া পত্রের ব্যাপারে সন্দেহ হলে তিনি উক্ত পত্র ডিজিএফ আইয়ের সদস্যকে দেখান। উক্ত কাগজ দেখে ডিজিএফ আই সদস্য তাকে বলেন এটা ভূয়া। বিষয়টি তিনি পুলিশ সুপারে কার্যালয়ে অভিযোগ করেন। পুলিশ সুপার বিষয়টি ডিবি সংস্থাকে তদন্তর দায়িত্ব দেয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here