শৌভিকের ড্রোন শনাক্ত করতে পারে ক্ষতিকর গ্যাস

0
359

প্রযুক্তি ডেস্ক: পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শৌভিক রায় দেশীয় প্রযুক্তিতে ড্রোন উদ্ভাবন করেছেন। ড্রোনটি বাতাসের ক্ষতিকর গ্যাস, যেমন কার্বন ডাই অক্সাইড ও কার্বন মনো অক্সাইড শনাক্ত করতে পারে। যা আবহাওয়া পর্যবেক্ষণে সহায়তা করবে। এ ছাড়া ড্রোনটি ছবি ও ভিডিও ধারণ করতে পারে, যা দুর্গত এলাকার মানুষের অবস্থা জানতে এবং সেখানে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণে ভূমিকা রাখতে পারবে।

ইনফরমেশন অ্যান্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৪র্থ বর্ষের ছাত্র শৌভিক জানান, তার উদ্ভাবিত ড্রোনটি একটি অঞ্চলের ত্রিমাত্রিক ম্যাপ তৈরির কাজে সহায়তা করতে সক্ষম। দূর নিয়ন্ত্রিত ড্রোনটি গুগল ম্যাপ ব্যবহার করে একটি নির্দিষ্ট এলাকা পর্যবেক্ষণ করতে পারবে। তিনি আরো জানান, একটি ডাটাবেইজ তৈরি করে ড্রোনটির মাধ্যমে একটি নির্দিষ্ট এলাকায় অপরিচিত কোনো ব্যক্তির উপস্থিতি শনাক্ত করার কাজ করছেন তিনি।

বর্তমানে দূর নিয়ন্ত্রিত যন্ত্রের সাহায্যে দেড় কিলোমিটার এলাকার মধ্যে ড্রোনটি নিয়ন্ত্রণ করা যাচ্ছে। এর ওজন প্রায় দুই কেজি এবং এটি অতিরিক্ত আরো তিন কেজি ওজন বহন করতে সক্ষম। রিচার্জেবল ব্যাটারির সাহায্যে ড্রোনটি চলে। শৌভিক রায় বলেন, ড্রোনটি তৈরি করতে ব্যয় হয়েছে ৩৮ হাজার টাকা। এটি তৈরিতে সময় লেগেছে ৮ মাস। ড্রোনটি তিনি দেশের কল্যাণে ব্যবহার করতে চান।

গত মাসে শৌভিক রায় ড্রোনটি তার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও বিভাগের শিক্ষক এবং তার সহপাঠীদের উপস্থিতিতে উড়িয়ে দেখিয়েছেন। যা শিক্ষার্থীদের মধ্যে ব্যাপক কৌতূহল সৃষ্টি করে। শৌভিক উপজেলার চুনকুড়ি উপজেলার রণজিত্ রায়ের ছেলে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here