বুদ্ধিজীবী দিবসে ‘নব্য রাজাকারদের’ প্রতিরোধের ডাক

0
128

ম্যাগপাই নিউজ ডেস্ক : একাত্তরে পরাজিত শক্তির উত্তরসূরিরা এখন ‘নব্য রাজাকারের’ ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়ে বাঙালি সংস্কৃতির ওপর আঘাত হানছে মন্তব্য করে তাদের রুখে দেয়ার ডাক এসেছে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবসের কর্মসূচি থেকে।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীতে তার ভাস্কর্য স্থাপনের বিরোধিতা এবং কুষ্টিয়ায় ভাস্কর্য ভাঙচুর নিয়ে যখন দেশজুড়ে প্রতিবাদ চলছে, সেই সময়ে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদনের পর মৌলবাদী-সাম্প্রদায়িক শক্তিকে প্রতিরোধের প্রত্যয় করেছে নানা শ্রেণি-পেশার মানুষের কণ্ঠে।

সোমবার শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসের সকালের আলো ফোটার সঙ্গে সঙ্গেই পুষ্পমাল্য নিয়ে একে একে বধ্যভূমিতে হাজির হতে থাকেন মুক্তিযোদ্ধা, শিক্ষক, সাংবাদিক, রাজনীতিক, সংস্কৃতিকর্মী ও বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা। স্কুলপড়ুয়া ছেলে-মেয়েদের সঙ্গে নিয়ে অনেক বাবা-মায়েরাও চলে আসেন শহিদ বেদীতে। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে গান, কবিতা ও বক্তৃতামালায় বুদ্ধিজীবীদের স্মরণ করেন তারা।

বিস্তারিত প্রতিনিধিদের রিপোর্টে

যশোর ঃ সকাল যশোরের শহরের রায়পাড়া শংকরপুর বধ্যভূমি স্মৃতিস্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণের মধ্য দিয়ে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন করে যশোরবাসী। সকাল ৮টা জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান, পুলিশ সুপার আশরাফ হোসেন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুজ্জামান পিকুল, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এএসএম রফিকুন্নবী, স্থানীয় সরকারের উপপরিচালক হুসাইন শওকতসহ সরকারের বিভিন্ন দফতরের কর্মকর্তাদের সাথে নিয়ে শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিস্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করেন। এর পরে  সরকারের বিভিন্ন দফতরসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও পেশাজীবী সংগঠনের পক্ষ থেকে বধ্যভূমি স্মৃতিস্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করা হয়। এসময় জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার রাজেক আহমেদের নেতৃত্বে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করা হয়। পরে একে একে শ্রদ্ধা জানান, সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন,  যশোর সদর-৩ আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদের পক্ষে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ, যশোর পৌরসভার মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু, জেলা আওয়ামী লীগ, যশোর পৌর আওয়ামী লীগ, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ, জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টুর নেতৃত্বে জেলা যুবলীগ, যশোর সদর উপজেলা পরিষদের পক্ষে চেয়ারম্যান নুর জাহান ইসলাম নীরা, ভাইস চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন বিপুল, নবনির্বাচিত মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জ্যোৎ¯œা আরা মিলি, যশোর মেডিকেল কলেজ, প্রেসক্লাব যশোর, সংবাদপত্র পরিষদ যশোর, যশোর সাংবাদিক ইউনিয়ন (জেইউজে), সাংবাদিক ইউনিয়ন যশোর, ফটো জার্নালিস্ট যশোর, দৈনিক স্পন্দন, প্রতিদিনের কথা, দৈনিক প্রজন্মের ভাবনা, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট যশোর, জেলা শিল্পকলা একাডেমি যশোর, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ, জেলা শ্রমিক লীগ, যুব মহিলা আওয়ামী লীগ, যুব শ্রমিক লীগ, ছাত্রলীগ, বিএনপি, নগর বিএনপি, উপজেলা বিএনপি, স্বেচ্ছাসেবক দল শ্রমিক দল, জাগপা, জাসদ, বাম গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট-যশোর, বাংলাদেশ ইউনাইটেড কমিউনিষ্ট লীগ, ওয়ার্কপার্টি (মার্কসবাদী) বাসদ (মার্কসবাসী), যুবমৈত্রী, ওর্য়াকাস পাটি, ছাত্রমৈত্রী, যুবমৈত্রী, ছাত্রলীগের প্রাক্তন সংসদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ, সদর উপজেলা ছাত্রলীগ, পৌর ছাত্রলীগ, সরকারি এম এম কলেজ ছাত্রলীগ, যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয় ছাত্রলীগ, সিটি কলেজ ছাত্রলীগ, জেলা শিক্ষা অফিস, এলজিইডি যশোর, সামাজিক বনায়ন বিভাগ যশোর, যশোর কলেজ, সেক্রেড হার্ট মাধ্যমিক বিদ্যালয়, পানি উন্নয়ন বোর্ড যশোর, সরকারি মহিলা কলেজ, স্বপ্ন দেখো সমাজ কল্যাণ সংস্থা, সনাতন ধর্ম সংঘ যশোর, মাগুরা কল্যাণ ফোরাম, আইডিইবি, সেক্টর কমান্ডার ফোরাম, ডা. আব্দুর রাজ্জাক মিউনিসিপ্যাল কলেজ যশোর, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড, শংকরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়, প্রথম আলো বন্ধুসভা, চিটার্স ট্রেনিং কলেজ যশোর, সরকারি সিটি কলেজ যশোর, সরকারি এম এম কলেজ, হামিদপুর আল হেরা ডিগ্রী কলেজ যশোর, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট যশোর, ফেন্ডস ক্লাব যশোর, যশোর আমিনিয়া কামিল মাদরাসা, ইঞ্জিনিয়ার্স ইউস্টিটিউশন যশোর কেন্দ্রসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন।

বেলা ১১ টায় জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে কালেক্টরেট সভাকক্ষে বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে জুম্ এ্যাপসের মাধ্যমে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে যুক্ত হন যশোর ৩ আসনের (সদর) সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ। জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার আশরাফ হোসেন, সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন, মণিরামপুর পৌর মেয়র অধ্যক্ষ মাহমুদুল হাসান, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক বাদল চন্দ্র বিশ্বাস, মুজিব বাহিনীর প্রধান আলী হোসেন মনি, জেলা জাসদের সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা অশোক রায়, সংবাদপত্র পরিষদের সভাপতি একরাম উদদ্দৌলাহ, শহীদ কর্নেল জামিল স্মৃতি সংসদের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আফজাল হোসেন দোদুল, ড. সবুজ শামীম আহসান, সাংবাদিক সাজ্জাদ গনি খাঁন রিমন প্রমুখ। সঞ্চালনা করেন জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা সাধন কুমার দাস।

এদিকে এছাড়াও যশোর সরকারি এমএম কলেজে ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ প্রফেসর সেখ আবুল কওসারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য দেন শিক্ষক পরিষদের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক শামসুর রহমান শাহীন, সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. খম রেজাউল করীম, অর্থনীতি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মহিউদ্দিন ও বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আহসান মোহাম্মদ ইকরামুল কবীর। যশোর সরকারি সিটি কলেজে আলোচনাসভা ও রচনা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ প্রফেসর লুৎফর রহমান প্রধান। শিক্ষক পরিষদের সম্পাদক জাকির হোসেনের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রফেসর কার্তিক চন্দ্র দে। ডা. আব্দুর রাজ্জাক মিউনিসিপ্যাল কলেজে অধ্যক্ষ জেএম ইকবাল হোসেনের সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন উপাধ্যক্ষ মঞ্জুরুল ইসলাম, সহকারী অধ্যাপক ড. ওয়াহেদুল ইসলাম, শাহানাজ বেগম ও ড. তপন কুমার গাগুলী। যশোর সরকারি মহিলা কলেজে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. আহসান হাবীব। শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উদযাপন কমিটির আহবায়ক ও বাংলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আব্দুল হান্নানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মিয়া মো. আব্দুর রশিদ ও শিক্ষক পরিষদের সম্পাদক সহকারী অধ্যাপক হুমায়ূন কবীর। এসময় বক্তব্য রাখেন বাংলা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর হোসনে আরা খাতুন, ভূগোল বিভাগের  সহকারী অধ্যাপক মিজানুর রহমান, দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রী দিবা নওশীন প্রমুখ। দোয়া পরিচালনা করেন ইসলামী শিক্ষা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান নাজমুল হাসান। এছাড়া দিবসটি পালন উপলক্ষে আয়োজিত কুইজ ও আবৃত্তি প্রতিযোগিতায় বিজয়ী ৬ জনের হাতে পুরস্কার তুলে দেয়া হয়।

যশোর জিলা স্কুল অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত আলোচনা ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা এএসএম আব্দুল খালেক। প্রধান শিক্ষক একেএম গোলাম আযমের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন স্কুলের প্রভাতী শাখার সহকারী প্রধান শিক্ষক নারায়ন চন্দ্র দেবনাথ ও  দিবা শাখার শাখার সহকারী প্রধান শিক্ষক শোয়াইব হোসেন প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন সহকারী শিক্ষক জামাল উদ্দিন। এদিন বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আয়োজিত রচনা প্রতিযোগিতায় বিজয়ী ৬ জনকে পুরস্কার প্রদান করা হয়।  যশোর শিক্ষ বোর্ড সরকারি মডেল স্কুল এন্ড কলেজে আলোচনা, দোয়া পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অধ্যক্ষ লেফটেনান্ট কর্নেল গোলাম মোস্তফা । উপাধ্যক্ষ কল্যাণ সরকার এতে সভাপতিত্ব করেন স্বাগত বক্তব্য রাখেন বুদ্ধিজীবী দিবস  পালন কমিটির আহবায়ক ও রসায়ন বিভাগের প্রভাষক গোলাম রসুল। এছাড়া বক্তব্য রাখেন  রাখেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সামাদ ও কৃষি শিক্ষা বিভাগের সহকারী শিক্ষক মুজিবুর রহমান প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন ছাত্রী তাহাজীবুন নুসরাত ও সুরাইয়া জাহান অনন্না। দিবসটি উপলক্ষে আয়োজিত রচনা প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। যশোর শিক্ষা বোর্ডে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া  মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান প্রফেসর আলী আর রেজার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন কলেজ পরিদর্শক কেএম গোলাম রব্বানী, বিদ্যালয় পরিদর্শক ড. বিশ্বাস শাহীন আহমেদ, হিসাব বিভাগের উপপরিচালক (হিওনি) এমদাদুল হক, কর্মকর্তা কল্যাণ পরিষদের সহসভাপতি মোজাম্মেল হক, সহসম্পাদক মুজিবুল হক প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনাা করেন উপসহকারী প্রকৌশলী কামাল আহামেদ।

যবিপ্রবি : যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ের শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে সোমবার জোহর বাদ বিশ^বিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদে দোয়া-মোনাজাত পূর্ব সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ আনোয়ার হোসেন। যবিপ্রবিতে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবসের কর্মসূচি শুরু হয় সূর্যোদয়ক্ষণে বিশ^বিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সম্মুখে কালো পতাকা উত্তোলন এবং জাতীয় ও বিশ্ববিদ্যালয়ের পতাকা অর্ধনমিতকরণের মাধ্যমে। দিবসটি উপলক্ষে যবিপ্রবি পরিবারের সদস্যরা কালোব্যাজও ধারণ করেন। কোভিড-১৯ এর কারণে অত্যন্ত সংক্ষিপ্ত পরিসরে স্বাস্থ্যবিধি মেনে যবিপ্রবিতে এবারের শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন করা হয়।  সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মোঃ আব্দুল মজিদ, রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মোঃ আহসান হাবীব, ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা দপ্তরের পরিচালক ড. মোঃ মীর মোশাররফ হোসেন, কর্মকর্তা সমিতির সভাপতি ড. মো. আব্দুর রউফ প্রমুখ। এ সময় যবিপ্রবির বিভিন্ন বিভাগের চেয়ারম্যানবৃন্দ, দপ্তর প্রধানগণ, শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ উপস্থিত ছিলেন। সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় পরে শহিদ বুদ্ধিজীবীদের রূহের মাগফিরাত কামনায় বিশেষ দোয়া-মোনাজাত করা হয়। দোয়া-মোনাজাত পরিচালনা করেন যবিপ্রবির কেন্দ্রীয় মসজিদের পেশ ইমাম মাওলানা মোঃ আকরামুল ইসলাম।

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় : খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত হয়। সকাল সাড়ে  ৯ টায় উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে অদম্য বাংলায় শহিদ বুদ্ধিজীবীদের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করেন। এরপরই বিভিন্ন ডিসিপ্লিন, বিভিন্ন আবাসিক হল, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি, স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ, বঙ্গবন্ধু পরিষদ, খুবি অফিসার্স কল্যাণ পরিষদ, অফিসারদের সংগঠন চেতনায় মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধু পরিষদসহ বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকেও শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করা হয়। এছাড়া অন্যান্য কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে জোহরবাদ বিশ্ববিদ্যালয় জামে মসজিদে দোয়া মাহফিল ও বিশ্ববিদ্যালয় মন্দিরে প্রার্থনা, সন্ধ্যায় শহিদমিনার ও অদম্য বাংলা চত্বরে প্রদীপ প্রজ্বালন। এর আগে সকাল ৯ টায় শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ ভবনের সম্মুখে কালোব্যাজ ধারণ, জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ ও কালো পতাকা উত্তোলন করা হয়। পরে উপাচার্যের নেতৃত্বে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণের প্রাক্কালে শহিদ তাজউদ্দিন আহমদ ভবনের সামনে থেকে একটি র‌্যালি শুরু হয়ে অদম্য বাংলা চত্বরে গিয়ে শেষ হয়। এ সময় উপউপাচার্য প্রফেসর ড. মোসাম্মাৎ হোসনে আরা, ডিন, ডিসিপ্লিন প্রধান, প্রভোস্ট, বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

কেশবপুর ঃ কেশবপুর উপজেলা প্রশাসন ও শিশু একাডেমির আয়োজনে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে শিশুদের মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক চিত্রাংকন, রচনা, আবৃত্তি  প্রতিযোগিতা ও আলোচনা সভা সকালে কেশবপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার এম এম আরাফাত হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন  উপজেলা শিশু বিষয়ক অফিসার বিমল কুমার কুন্ডু, উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার পুলোক শিকদার, উপজেলা সহকারী শিক্ষা অফিসার মাসুদুর রহমান, কেশবপুর উপজেলা প্রেসক্লাবর সভাপতি এস আর সাঈদ, অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক কনক দে, প্রধান শিক্ষক ইসমোতারা বেগম প্রমুখ।

পাইকগাছা ঃ  বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে পাইকগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগ, উপজেলা প্রশাসন, পাইকগাছা সরকারি কলেজ, সরকারি বালিকা বিদ্যালয়সহ বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও সংগঠনের  উদ্যোগে  আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার সকালে আওয়ামী লীগের  দলীয় কার্যালয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান আনোয়ার ইকবাল মন্টুর সভাপতিত্বে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সমীরণ সাধু, সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য শেখ কামরুল হাসান টিপু, যুগ্মসম্পাদক আনন্দ মোহন বিশ্বাস, আওয়ামী লীগনেতা নির্মল ঢালী, আলহাজ্ব মুনছুর আলী গাজী, নির্মল অধিকারী, জিএম ইকরামুল ইসলাম, প্রভাষক ময়নুল ইসলাম, হেমেশ চন্দ্র মন্ডল, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শিয়াবুদ্দীন ফিরোজ বুলু, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান লিপিকা ঢালী, শেখ আনিছুর রহমান মুক্ত।

পাইকগাছা সরকারি কলেজে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসের আলোচনা সভায় সভাপত্বি করেন অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) মিহির বরন মন্ডল। অপরদিকে পাইকগাছা সরকারি বালিকা বিদ্যালয়সহ বিভিন্ন সংগঠন দিবসটি পালন করেছে।

ফুলতলা ঃ শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে ফুলতলা উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে পরিষদ সভা কক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সহকারী কমিশনার (ভূমি) রুলী বিশ্বাসের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ সভাপতি আলহাজ্ব শেখ আকরাম হোসেন। বিআরডিবি কর্মকর্তা আফরুজ্জামানের পরিচালনায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার কাজী জাফর উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সরদার শাহাবুদ্দিন জিপ্পী, মৃনাল হাজরা, ইউপি চেয়ারম্যান শেখ আবুল বাশার, কৃষি কর্মকর্তা ইনসাদ ইবনে আমিন, সমাজ সেবা কর্মকর্তা মোঃ শাহীন আলম, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ফাতেমা বেগম, প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মুহা. আবুল কাশেম, বীজ কর্মকর্তা আনোয়ার হোসেন, আইসিটি কর্মকর্তা পুষ্পেন্দু দাশ, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা ফারহানা ইয়াসমিন, সাংবাদিক শেখ মনিরুজ্জামান প্রমুখ। এদিকে গাড়াখোলা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক তাপস কুমার বিশ্বাসের সভাপতিত্বে, জামিরা বাজার আসমোতিয়া স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ গাজী মারুফুল কবিরের সভাপতিত্বে এবং ফুলতলা রি-ইউনিয়ন স্কুল এন্ড কলেজের উদ্যোগে অধ্যক্ষ অজয় কুমার চক্রবর্তীর সভাপতিত্বে অনুরুপ এক আলোচনাসভা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অনুষ্ঠিত হয়।

শৈলকুপাঃ শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষ্যে ঝিনাইদহের শৈলকুপায় এক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বিকালে উপজেলা ও পৌর আ‘লীগের যৌথ উদ্যোগে পৌর কার্যালয় প্রাঙ্গনে আলোচনসভা অনুষ্ঠিত হয়। শৈলকুপা উপজেলা আ‘লীগের সাধারণ সম্পাদক ও মনোহরপুর ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তফা আরিফ রেজা মন্নুর সভাপতিত্বে ও সরকারি ডিগ্রি কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মনিরুল ইসলামের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ঝিনাইদহ জেলা আ‘লীগের সদস্য ও উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নায়েব আলী জোর্য়াদার। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি জাহিদুন্নবী কালু। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন পৌর কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র রাকিবুজ্জামান রাকিব। এছাড়া অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মেয়রপুত্র রাজীব হোসেন, সরকারি ডিগ্রি কলেজের সাবেক ভিপি মিজানুর রহমান মিজানসহ বিভিন্ন ওয়ার্ডের পৌর কাউন্সিলর, আ‘লীগের নেতৃবৃন্দ ও বিভিন্ন শ্রেনীপেশার মানুষ।

চুকনগর ঃ শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে চুকনগর গণহত্যা-৭১ স্মৃতি বধ্যভূমিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে সরকারি-বেসরকারী বিভিন্ন সংগঠন। সকালে ডুমুরিয়া উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে প্রথম পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়। এরপর ডুমুরিয়া থানা, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, গণহত্যা-৭১ স্মৃতিরক্ষা পরিষদ পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন। এরপর বধ্যভূমি চত্বরে সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন ডুমুরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান গাজী এজাজ আহম্মেদ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আব্দুল ওয়াদুদ, ডুমুরিয়া থানার পরিদর্শক (অপরেশন) মোঃ আকরাম হোসেন, গণহত্যা-৭১ স্মৃতিরক্ষা পরিষদের সভাপতি অধ্যক্ষ এ বি এম শফিকুল ইসলাম, উপজেলা প্রশাসনের প্রধান প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল হাই, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের পক্ষে শেখ আবুল কালাম মহিউদ্দিন, অধ্যাপক হাফিজ মাহমুদ, চুকনগর প্রেসক্লাবের সভাপতি এম রুহুল আমীন, প্রমুখ। আলোচনাসভা শেষে শহিদদের রূহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া করা হয়।

মাগুরা ঃ  মাগুরায় শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে সন্ধ্যায় নোমানী ময়দানের শহীদ মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়েছে। পাশাপাশি মোমবাতি প্রজ্বালন করে স্মৃতিস্তম্ভের পাশে দাঁিড়য়ে শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদনে অংশ নেন সরকারি বেসরকারী কর্মকর্তা, রাজনীতিবিদ, বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দসহ নানা শ্রেণি পেশার মানুষ ।

পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে নোমানী ময়দানে দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় জেলা প্রশাসক ড.আশরাফুল আলমের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জেলা পুলিশ সুপার খান মুহাম্মদ রেজোয়ান,জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পংকজ কুমার কুন্ডু,সিভিল সার্জন প্রদীপ কুমার সাহা, পৌর মেয়র খুরশিদ হায়দার টুটুল,সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আবু নাসির বাবলু,জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আ.ফ.ম আব্দুল ফাত্তাহ,জেলা মুক্তিযোদ্ধা ইউনিটের ডেপুটি কমান্ডার আব্দুর রহমান,জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মীর মেহেদী হাসান রুবেল ও সাধারণ সম্পাদক আলী হোসেন মুক্তা প্রমুখ।

ঝিনাইদহ ঃ ঝিনাইদহে নানা আয়োজনে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত হয়েছে। জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে সোমবার দুপুরে শহরের পায়রা চত্বর থেকে একটি র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক ঘুরে মুজিব চত্বরে গিয়ে শেষ হয়। পরে শহিদ স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পমাল্য অপর্ণ করেন দলের নেতাকর্মীরা। পরে সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টু, প্রচার সম্পাদক মঞ্জুর পারভেজ তুষারসহ অন্যান্যরা বক্তব্য রাখেন। এসময় বক্তারা, দেশে মৌলবাদী, ধর্মান্ধ উগ্র সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠীর আস্ফালন রুখে দেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। শেষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়।

কয়রা ঃ কয়রা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যে দিয়ে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত হয়েছে। দিবসটি পালন উপলক্ষে সকাল ৮ টায় স্মৃতি সৌধে ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মুর‌্যালে  পুস্পস্তবক অর্পণ শেষে সকাল ১০ টায় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা প্রাণি সম্পদ কর্মকর্তা ডাক্তার কাজী মোস্তাহিন বিল্লাহর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্জ এসএম শফিকুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাসিমা আলম। এতে বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার অ্যাডভোকেট কেরামত আলী, কয়রা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ রবিউল হোসেন, উপজেলা কৃষি অফিসার এসএম মিজান মাহমুদ,কয়রা সদর ইউপি চেয়ারম্যান মেহঃ সহুমায়ুন কবির প্রমুখ। অপরদিকে উপজেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে সকাল ১০ টায় দলীয় কার্যালয়ে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন উপলক্ষে এক আলোচনা সভা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জিএম মোহসিন রেজার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, কৃষকলীগ, শ্রমিকলীগ, ছাত্রলীগসহ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

এনইউবিটি ঃ নর্দান ইউনিভার্সিটি অব বিজনেজ এন্ড টেকনোলজী খুলনায় শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিষ্ট্রার ড. মো: শাহ আলমের সভাপতিত্বে অডিটোরিয়ামে এ আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান আলোচক হিসেবে আলোচনা করেন, সাইন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ডিন, প্রফেসর ড.আনোয়ারুল হক জোয়াদ্দার। পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ শাখার কর্মকর্তা মো: রাশিদুল ইসলামের সঞ্চালনায় সভায় বিশ্ববিদ্যালয়েল বিভিন্ন বিভাগে বিভাগীয় প্রধানগণ, প্রক্টর, ছাত্র উপদেষ্টা, শিক্ষক, ও কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আলমডাঙ্গা ঃ আলমডাঙ্গায় উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ১০ টায় উপজেলা হলরুমে আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ লিটন আলী। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আইয়ুব হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন ভাইস চেয়ারম্যান সালমুন আহমেদ ডন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) হুমায়ুন কবির, থানা অফিসার ইনচার্জ হুমায়ন কবীর, মুক্তিযোদ্ধা শাহাবুদ্দিন শাবু, আব্দুল কুদ্দুস, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মজিবর রহমান, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি দেলোয়ার হোসেন, প্রাণি সম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ আব্দুল্লাহ হিল কাফি, উপজেলা প্রকৌশলী আব্দুর রশীদ, পঃ পঃ কর্মকর্তা হাসানুজ্জামান, মৎস কর্মকর্তা ফাতেমা কামরুন নাহার আঁখি, কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা সোহেল রানা, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আব্দুল বারী, উপজেলা শিক্ষা অফিসার সামসুজ্জোহা, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা আনিচুর রহমান, সমবায় কর্মকর্তা মুজিবর রহমান, উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার আফাজ উদ্দিন, বিআরডিবি কর্মকর্তা সায়লা সারমিন ও মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মাকসুরা জান্নাত।

বেনাপোল ঃ “দুনিয়ার মানবতাবাদীরা এক হও” “সন্ত্রাস জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে লড়াই কর” এই স্লোগানকে সামনে রেখে বেনাপোলে নানা আয়োজনে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের স্মরণে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত হয়েছে। সকালে বেনাপোল আর্ন্তজাতিক চেকপোস্টে হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে বিন¤্র শ্রদ্ধা জানিয়ে শহিদ বুদ্ধিজীবী স্মরণে স্মরণ সভা ও র‌্যালি বের করা হয়। পরে বেনাপোল কাগজপুকুরে স্থাপিত শহিদ স্মৃতি স্তম্ভে ফুল দিয়ে জাতির সকল সূর্য সন্তানদের সম্মান জানান হয়।

বাংলাদেশ সোস্যাল এ্যাক্টিভিস্ট ফোরাম (বি.এস.এ.এফ) বেনাপোল শাখার আয়োজনে স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিল, কাসটম কর্মকর্তা, বন্দর কর্মকর্তা, পুলিশ কর্মকর্তা, বিজিবি, রাজনৈতিক সংগঠন, ব্যবসায়ী সংগঠন, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন সামাজিক ব্যক্তিত্ব শ্রদ্ধাভরে দিবসটি পালন করেন। বাংলাদেশ সোস্যাল এ্যাক্টিভিস্ট ফোরাম (বি.এস.এ.এফ) বেনাপোল শাখার সভাপতি ও বন্দর প্রেসক্লাবের সভাপতি শেখ কাজিম উদ্দিনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক’র সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত বুদ্ধিজীবী দিবস উদযাপন অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন বেনাপোল পোর্ট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মামুন খান, ইমিগ্রেশন অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আহসান হাবিব, বন্দর উপ-পরিচালক (ট্রাফিক) মামুন কবির তরফদার, কাস্টম হাউসের রাজস্ব কর্মকর্তা শারমিন আক্তার, বেনাপোল ট্রান্সপোর্ট মালিক সমিতির সভাপতি আজিম উদ্দিন গাজী, কাস্টমস ক্লিয়ারিং এন্ড ফরওয়াডিং এজেন্ট স্টাফ এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুর রহমান, পৌর সেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি জুলফিকার আলী মন্টু, সাধারণ সম্পাদক কামাল হোসেন, বাংলাদেশ সোস্যাল এ্যাক্টিভিস্ট ফোরাম (বি.এস.এ.এফ) বেনাপোল শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক আনিছুর রহমান, যুগ্ম সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান রুবেল প্রমুখ।

বেনাপোল ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ বজলুর রহমানের সার্বিক সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত বুদ্ধিজীবী দিবস উদযাপন অনুষ্টানে বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ স্বাধীনতাকামী বাঙালি জাতিকে মেধা শুন্য করার ষঢ়যন্ত্রের নীলনকশা বাস্তবায়নে ১৪ ডিসেম্বর ১৯৭১ সালে পাকিস্তানি সেনাবাহিনী ও স্বাধীনতা বিরোধী রাজাকার-আলবদর-আলশামস বাহিনীর সহযোগীতায় নৃর্মম নিশংস গণহত্যার স্মরণ করেন। বেদনা বিধুর বক্তব্য প্রদাণ করেন বেনাপোল মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহ আলম হাওলাদার, দীন ইসলাম মল্লিক, আবু সামা, আবুল হোসেন, শামছুল হুদা, আতিয়ার রহমান, আব্দুল লতিফ, আলতাফ চৌধূরী প্রমুখ।

বেনাপোলে এই প্রথম বৃদ্ধিজীবী স্মরণে স্মরণসভা, র‌্যালি ও শহিদদের স্মরণে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদনে মুক্তিযোদ্ধাগণ আবেগে আপ্লুত হন।

কলারোয়া ঃ কলারোয়া পাবলিক ইনস্টিটিউটের উদ্যোগে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে সোমবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে কলারোয়া ফুটবল ময়দানের দক্ষিণ পাশে অবস্থিত শহীদ মিনার ও মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিসৌধে শহিদ বুদ্ধিজীবীদের স্মৃতিচারণে মোমবাতি প্রজ্বালন করা হয়। মোমবাতি প্রজ্বালনের উদ্বোধন করেন সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মনোরঞ্জন সাহা। কলারোয়া পাবলিক ইনস্টিটিউটের সভাপতি শেখ শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত স্মৃতিচারণমূলক আলোচনা সভায় বক্তারা অসাম্প্রদায়িক অপশক্তিকে রুখে দেওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এসময় বক্তব্য দেন ও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা জাসদের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার হোসেন, দৈনিক পত্রদূতের উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য  অধ্যাপক শেখ জাভিদ হাসান, কলারোয়া পৌরসভার মেয়র (ভারপ্রাপ্ত) প্রধান শিক্ষক মনিরুজ্জামান বুলবুল, উপজেলা আ.লীগের সাংগঠনিক সস্পাদক বেনজীর হেলাল, উপজেলা শিক্ষক- কর্মচারী কল্যাণ সমিতির সভাপতি প্রধান শিক্ষক হরিসাধন ঘোষ, অবসর প্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আব্দুর রহমান, পৌর আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক সহিদুল ইসলাম, কলারোয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি শিক্ষক দীপক শেঠ, সাবেক সাধারণ সম্পাদক জুলফিকারুজ্জামান জিল্লু, সাবেক সাধারণ সম্পাদক প্রধান শিক্ষক রাশেদুল হাসান কামরুল, কলারোয়া গালর্স পাইলট হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক বদরুজ্জামান বিপ্লব, পৌর কাউন্সিলর আকিমুদ্দীন আকি, শিক্ষক অনুপ কুমার ঘোষ, শিক্ষক আব্দুল ওহাব মামুন, সেবা’র প্রভাষক মিজানুর রহমান, জোবায়ের, আলফাজ প্রমুখ। সমগ্র অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন পাবলিক ইনস্টিটিউটের সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. শেখ কামাল রেজা।

কালিগঞ্জ ঃ শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে কালিগঞ্জে সোহরাওয়ার্দী পার্কের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মোমবাতি প্রজ্জ্বলন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সোমবার সন্ধ্যায় মোমবাতি প্রজ্বালন শেষে শহিদ বুদ্ধিজীবীদের স্মরণে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সুকুমার দাশ বাচ্চুর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সাঈদ মেহেদী, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাজিবুল আলম প্রমুখ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) দেলোয়ার হুসেন, উপজেলা প্রকৌশলী জাকির হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও তারালী ইউপি চেয়ারম্যান এনামুল হোসেন ছোট, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার শেখ মেহেদী হাসান সুমন, সাধারণ সম্পাদক এসএম গোলাম ফারুক, ধলবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি সজল মুখার্জী, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আবুল কালাম আজাদ, রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি সহকারী অধ্যাপক নিয়াজ কওছার তুহিন, সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি শেখ শাওন আহমেদ সোহাগ, সোহরাওয়র্দী পার্ক কমিটির সদস্য সচিব অ্যাড. জাফরুল্ল্যাহ ইব্রাহিম, থানার উপপরিদর্শক হাফিজুর রহমান, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান, উপজেলা যুবলীগের সভ-সভাপতি রেজাউল করিম, তথ্য প্রযুক্তিলীগের সভাপতি মাসুদ পারভেজ, তাঁতীলীগের সভাপতি আবু বক্কার, কুশুলিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ওসমান খান প্রমুখ। এসময় বক্তরা ৭১-এর ১৪ ডিসেম্বর সারা দেশে বুদ্ধিজীবীদের নারকীয় হত্যাযজ্ঞের কথা তুলে ধরে পাকিস্তানিদের দোসর রাজাকার আলবদরদের তালিকা তৈরি করে তাদের শাস্তির দাবি করেন।

আশাশুনি ঃ শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আশাশুনি উপজেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার সকালে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এবিএম মোস্তাকিমের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শম্ভুজিত মন্ডল, সাবেক সহসভাপতি নীলকন্ঠ সোম, রফিকুল ইসলাম মোল্যা, সাংগঠনিক সম্পাদক ও সদর ইউপি চেয়ারম্যান স,ম সেলিম রেজা মিলন, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সামাদ বাচ্চু, দপ্তর সম্পাদক জগদীশ চন্দ্র সানা, আওয়ামীলীগ নেতা বুদ্ধদেব সরকার, রাজু আহমেদ পিয়াল, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য মহিতুর রহমান, শ্রমিক লীগের সভাপতি ঢালী শামছুল আলম, স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি এসএম সাহেব আলী, শ্রমিকলীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান বিপুল, ছাত্রলীগের সভাপতি আসমাউল হোসাইন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা সভা শেষে বিজয় দিবস পালনের প্রস্তুতি সভায় উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতৃত্বে সকল সহযোগী সংগঠনকে সাথে নিয়ে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসের কর্মসূচি একযোগে পালনের সিদ্ধান্ত গৃিহত হয়।